artk
বুধবার, অক্টোবার ১৬, ২০১৯ ৭:৩৬   |  ১,কার্তিক ১৪২৬

স্টাফ রিপোর্টার

বুধবার, সেপ্টেম্বার ১১, ২০১৯ ৭:৪০

রিশা হত্যা: ওবায়দুলের শাস্তির বিষয়ে জানা যাবে ৬ অক্টোবর

media

অভিযোগপত্রে বলা হয়, রিশার মা তানিয়া ওই হত্যাকাণ্ডের ৫/৬ মাস আগে রিশাকে নিয়ে বৈশাখী টেইলার্সে কাপড় সেলাই করাতে যান। এরপর দোকানের রসিদের কপি থেকে ফোন নম্বর নিয়ে দোকানের কর্মচারী ওবায়দুল ফোনে রিশাকে বিরক্ত করতে থাকে। রিশা প্রেমের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ওবায়দুল তাকে ছুরি মেরে হত্যা করে।  

ঢাকার উইলস লিটল ফ্লাওয়ার স্কুলের ছাত্রী সুরাইয়া আক্তার রিশাকে হত্যার ঘটনায় দরজি কর্মচারী ওবায়দুল হকের সাজার ব্যাপারে জানা যাবে ৬ অক্টোবর।

তিন বছর আগের আলোচিত ওই মামলার শুনানি শেষে বুধবার ঢাকার মহানগর দায়রা জজ কে এম ইমরুল কায়েশ রায়ের জন্য  ৬ অক্টোবর দিন ধার্য করেন।

সিদ্দিক বাজারের ব্যবসায়ী রমজান হোসেনের মেয়ে রিশা ঢাকার কাকরাইলের উইলস লিটল ফ্লাওয়ার স্কুলের অষ্টম শ্রেণিতে পড়তো।

২০১৬ সালের ২৪ আগস্ট দুপুরে স্কুলের সামনে ফুটব্রিজে তাকে ছুরিকাঘাত করা হয়। চার দিন পর হাসপাতালে মারা যায় ১৪ বছর বয়সী ওই কিশোরী।

হামলার দিনই রিশার মা তানিয়া বেগম রমনা থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেন। রিশা মারা যাওয়ার পর এটি হত্যা মামলায় পরিণত হয়।

৩১ আগস্ট নীলফামারীর ডোমার থেকে গ্রেপ্তার করা হয় ওবায়েদুলকে।

ওবায়েদুল খান দিনাজপুর জেলার বীরগঞ্জ উপজেলার মোহনপুর ইউনিয়নের মীরাটঙ্গী গ্রামের আবদুস সামাদের ছেলে ওবায়েদুল ইস্টার্ন মল্লিকা শপিং মলে মলে বৈশাখী টেইলার্স নামের একটি দর্জির দোকানের কর্মচারী ছিলেন।

রমনা থানার পরিদর্শক আলী হোসেন ২০১৬ সালের ১৪ নভেম্বর ওবায়দুলকে একমাত্র আসামি করে আদালতে অভিযোগপত্র দেন।

অভিযোগপত্রে বলা হয়, রিশার মা তানিয়া ওই হত্যাকাণ্ডের ৫/৬ মাস আগে রিশাকে নিয়ে বৈশাখী টেইলার্সে কাপড় সেলাই করাতে যান। এরপর দোকানের রসিদের কপি থেকে ফোন নম্বর নিয়ে দোকানের কর্মচারী ওবায়দুল ফোনে রিশাকে বিরক্ত করতে থাকে। রিশা প্রেমের প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় ওবায়দুল তাকে ছুরি মেরে হত্যা করে।  

২০১৭ সালের ১৭ এপ্রিল আদালত অভিযোগ গঠনের মধ্য দিয়ে আসামি ওবায়দুলের বিচার শুরুর আদেশ দেয়।

বাদীপক্ষের ২৬ জন সাক্ষীর মধ্যে মোট ২১ জনের সাক্ষ্য ও জেরা শেষে ওবায়দুল হককে আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দেওয়া হয়। ১১ সেপ্টেম্বর তিনি আদালতে নিজেকে নির্দোষ দাবি করেন।

আসামিপক্ষের আইনজীবী ফারুক আহম্মদ বলেন, আমার মক্কেল নির্দোষ। তার বোন ও ভগ্নিপতিকে আটকে রেখে এবং তাকে নির্যাতন করে পুলিশ স্বীকারোক্তি আদায় করেছে। আশা করি আদালতের রায়ে সে খালাস পাবে।

অন্যদিকে এ আদালতের অতিরিক্ত পাবলিক প্রসিকিউটর তাপস কুমার পাল বলেন, আসামি প্রকাশ্য দিবালোকে একটা মেয়েকে ছুরি মেরে হত্যা করেছে। তার এমন সাজা হওয়া উচিত যেন ভবিষ্যতে আর কেউ এ ধরনের কাজ করতে সাহস না পায়।

এসিসি ইমার্জিং নারী এশিয়া কাপের দল ঘোষণা বাংলাদেশের বিবিসির ১০০ নারীর তালিকায় রোহিঙ্গা ক্রিকেটার জেসমিন বিদ্যালয়ের গণ্ডি না পেরিয়েও বিজ্ঞানী বাবরি মসজিদ মামলার শুনানি শেষ, হট্টগোলের পর রায় স্থগিত পুঁজিবাজারের সূচকে পতন ভারত টেস্টে তাসকিনকে পেতে শেষ পর্যন্ত অপেক্ষা এবার আমরণ অনশনের হুমকি নন-এমপিও শিক্ষক-কর্মচারীদের খাগড়াছড়িতেও দুর্নীতিবিরোধী অভিযান চালানো হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ইমরান খানের সাথে সৌরভকে তুলনা করলেন শোয়েব আখতার দুর্ঘটনা এড়াতে চালক-পথচারী সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে: প্রধানমন্ত্রী ১০০ বলের ক্রিকেট ড্রাফটে বাংলাদেশের ১১ জন বিশেষ প্রয়োজন ছাড়া শিল্পী সমিতিতে প্রবেশ নিষেধ চট্টগ্রাম মেডিকেলের ডাক্তার-নার্সদের নোবেল দেয়া উচিত: মেয়র নাছির পীরগঞ্জে পুলিশ-গ্রামবাসী সংঘর্ষ, গুলিবিদ্ধ ১৫ গোপালগঞ্জ প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ৭ কর্মকর্তার পদত্যাগ ন্যাম সম্মেলনে যোগ দিতে বুধবার আজারবাইজান যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী সন্ত্রাস-সাম্প্রদায়িক শক্তি রুখে দেয়ার শপথ নিলেন বুয়েট শিক্ষার্থীরা কুষ্টিয়ায় স্বামী হত্যায় স্ত্রীসহ ৪ জনের মৃত্যুদণ্ড একযোগে গণশপথ নিয়ে আন্দোলনের ইতি টানলেন শিক্ষার্থীরা ১১৭ দেশের ক্ষুধার সূচকে বাংলাদেশ ৮৮তম একাধিক মেয়ের সাথে সম্পর্ক সিদ্দিকের, অভিযোগ স্ত্রী মিমের নেত্রকোণায় মাদরাসাছাত্র খুন, স্থানীয় বিএনপি নেতা আটক কুষ্টিয়ায় ৩ দিনব্যাপী লালন মেলা শুরু রিফাত হত্যা মামলায় প্রধান আসামির জামিন নামঞ্জুর উন্নয়নে বাংলাদেশ যুক্তরাষ্ট্রকেও হার মানিয়েছে: নাহিদ কুড়িগ্রাম এক্সপ্রেস উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী আ.লীগ কর্মী হত্যায় যুবলীগ নেতা গ্রেপ্তার বাস-ট্রাকের মাঝে চাপা পড়ে নারীর মৃত্যু ড. কামালের ওপর হামলা মামলার প্রতিবেদন ২০ নভেম্বর সাড়ে ৮ লাখেও চাকরি হয়নি, কাঁদলেন প্রার্থী