artk
সোমবার, ডিসেম্বার ৯, ২০১৯ ৬:৪১   |  ২৫,অগ্রহায়ণ ১৪২৬

বিচিত্র ডেস্ক

বুধবার, সেপ্টেম্বার ১১, ২০১৯ ৯:০৪

গ্রহাণুর আঘাতের কারণে বিলুপ্ত হয় ডাইনোসর

media

ডাইনোসররা নিশ্চিহ্ন হয়ে গিয়েছিল পৃথিবীর ওপর এক বিশাল গ্রহাণুর আঘাতের পরিণামে। একদল বিজ্ঞানী সেই ঘটনাটির বিশদ বিবরণ তৈরি করেছেন সেকেন্ড-মিনিট-ঘণ্টা ধরে ধরে।

পৃথিবীর বুকে এক সময় বিচরণ করতো যে অতিকায় ডাইনোসররা, আজ শুধু পাওয়া যায় তাদের হাড়গোড়। কারণ, এখন থেকে প্রায় ছয় কোটি ৬০ লাখ বছর আগে এক ভয়ংকর ঘটনার পরিণতিতে তারা সবাই মারা গেছে।

গবেষকরা মনে করেন পৃথিবীতে এক বিরাট আকারের গ্রহাণুর আঘাতে যে বিস্ফোরণ ও পরিবেশগত পরিবর্তন হয়েছিল সেটাই ডাইনোসরদের নিশ্চিহ্ন হয়ে যাবার কারণ।

ডাইনোসরদের বিলুপ্তির পর পৃথিবীতে শুরু হয় স্তন্যপায়ী প্রাণীদের যুগ।

ইউকাটান উপদ্বীপের জ্বালামুখ সাদা চিহ্ন বরাবর - যেখানে আঘাত হেনেছিল গ্রহাণু

বিজ্ঞানীরা বলছেন, সেই গ্রহাণুটি ছিল ১২ কিলোমিটার চওড়া। সেটা এসে পড়েছিল মেক্সিকো উপসাগর তীরবর্তী ইউকাটান উপদ্বীপ এলাকায়।

সেই এলাকায় তৈরি হওয়া বিশাল জ্বালামুখের ভূপ্রকৃতি এবং শিলার গঠন তন্ন তন্ন করে পরীক্ষা করে দেখেছেন টেক্সাস বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি গবেষক দল, এবং সেই গ্রহাণুর আঘাতের চিহ্ন তারা খুঁজে পেয়েছেন।

গবেষকরা বলছেন, এত জোরে এটি পৃথিবীর বুকে আছড়ে পড়েছিল যে তাতে ২০০ কিলোমিটার চওড়া এবং কয়েক কিলোমিটার গভীর একটি গর্ত বা জ্বালামুখ তৈরি হয়েছিল। গর্তটির কিনারগুলো তার পর ভেতর দিকে ধসে পড়ে।

এর ফলে সাগরে সৃষ্টি হয়েছিল এক ভয়াবহ সুনামি, তৈরি হয়েছিল দানবাকৃতির ঢেউ।

মেক্সিকোর চিকশুলাব জ্বালামুখ থেকে পাওয়া শিলা

এই গর্তটির বড় অংশই এখন আছে সমুদ্রের তলায়- তার ওপর জমেছে ৬০০ মিটার পুরু পলির আস্তরণ। মাটির ওপর যে অংশ আছে তা চুনাপাথর দিয়ে ঢাকা।

বিজ্ঞানীরা ওই এলাকাটির উপাদান পরীক্ষা করে কোনো সালফার বা গন্ধকের উপস্থিতি পান নি। কিন্তু সমুদ্রের তলদেশের ওই জায়গাটির এক তৃতীয়াংশই ছিল জিপসামের তৈরি, যার অন্যতম উপাদান সালফার।

বিজ্ঞানীরা বলছেন, গ্রহাণুর আঘাতে সৃষ্টি হয়েছিল সুনামির

বিজ্ঞানীরা বলছেন, সেই সালফার হয়তো ওই গ্রহাণুর আঘাতজনিত বিস্ফোরণে সাগরের পানির সাথে মিশে গিয়েছিল এবং তা আকাশে ছড়িয়ে পড়েছিল।

তার ফলে নাটকীয়ভাবে আবহাওয়া অত্যন্ত ঠাণ্ডা হয়ে যায়, এবং কোনো প্রাণী বা গাছপালার বেঁচে থাকা দুরূহ হয়ে ওঠে।

বিজ্ঞানীদের অন্যতম টেক্সাস বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক শন গুলিক বলছেন, একশ গিগাটন (এক গিগাটন মানে হলো ১০০ কোটি টন) সালফার বায়ুমণ্ডলে মিশে যাবার ফলে তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চাইতে অন্তত ২৫ ডিগ্রি নিচে নেমে যায়। তার মানে পৃথিবীর বেশির ভাগ এলাকার তাপমাত্রা তখন নেমে গিয়েছিল শূন্য ডিগ্রির নিচে।

ডাইনোসরের মাথার খুলি

তিনি আরো বলছেন, রক্ষণশীল হিসেবে মনে করা হয় যে ওই ঘটনায় পৃথিবীর বায়ুমণ্ডলে প্রায় ৩২৫ গিগাটন সালফার ছড়িয়ে গিয়েছিল।

এত ঠাণ্ডা আবহাওয়ায় স্তন্যপায়ী প্রাণীরা বেঁচে থাকতে পেরেছিল, কিন্তু ডাইনোসররা বাঁচতে পারে নি।

ডাইনোসররা কেন সহসাই পৃথিবী থেকে নিশ্চিহ্ন হয়ে গিয়েছিল- তার সম্ভাব্য কারণ ব্যাখ্যা করে যেসব তত্ত্ব আছে, তার মধ্যে এটি বিজ্ঞানীদের মধ্যে জনপ্রিয়। অধ্যাপক গুলিকের গবেষণায় এ তত্ত্ব সমর্থনে বেশ কিছু যুক্তি মিলে যাচ্ছে।

নিউজিল্যান্ডে অগ্নুৎপাতে ৫ পর্যটকের মৃত্যু ‘বিশ্ববিদ্যালয়কে ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানে পরিণত করছেন এক শ্রেণির শিক্ষক’ আন্তর্জাতিক ক্রীড়াঙ্গনে ৪ বছর নিষিদ্ধ রাশিয়া বিশ্বের সর্বকনিষ্ঠ প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন সানা ম্যারিন ৬৪ শতাংশ কোম্পানির শেয়ার দর কমেছে সেই শ্রীলঙ্কাকেই হারিয়ে স্বর্ণ জয় সৌম্য-শান্তদের কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে অবৈধ স্থাপনা ধ্বংসে কেন নির্দেশ নয় মন্ত্রিসভায় ভালো না করলে দায়িত্ব পরিবর্তন করা হবে: কাদের চলতি মাসেই পুরান ঢাকায় চক্রাকার বাস মিস ইউনিভার্স হলেন আফ্রিকান সুন্দরী ইতিবাচক মনোভাবে প্রজন্ম হবে দুর্নীতিবিরোধী: ড. আনিসুজ্জামান মারা গেলেন বরেণ্য অধ্যাপক অজয় রায় ধর্ষণ মামলা: যুক্তরাষ্ট্র আ.লীগের সেই নেতাকে বহিষ্কার দেশে সর্বক্ষেত্রে দুর্নীতি শুরু হয়েছে: ফখরুল সামাজিক-রাজনৈতিক দুর্নীতিই বড় দুর্নীতি: মির্জা ফখরুল শ্রমজীবীরা নয়, কর্মকর্তারাই দুর্নীতি করে: আমু পাঁচ বিশিষ্ট নারীকে বেগম রোকেয়া পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুকে অনেক ভালোবাসি: সালমান খান আর্চারির চার ইভেন্টের সব ক’টিতে সোনা জিতল বাংলাদেশ শত্রুতা করলে সবই হারাবেন কিম: ট্রাম্প অবৈধ সম্পদ নিয়ে কাউকে শান্তিতে থাকতে দেয়া হবে না: দুদক চেয়ারম্যান কায়রো থেকে রাজধানী সরাচ্ছে মিশর মিয়ানমার থেকে এলো আরও ৪১ হাজার মণ পেঁয়াজ এসএ গেমসে সোনা জিতে কাঁদলেন সোমা সমাবর্তনে উৎসবমুখর ঢাবি ক্যাম্পাস প্রেমিকার বাবা-মাকে দায়ি করে স্টামফোর্ড ছাত্রের আত্মহত্যা বাসে যৌন হয়রানি: যাত্রীকে ৬ মাসের কারাদণ্ড উগ্রবাদবিরোধী জাতীয় সম্মেলন শুরু শাজাহান খানের বক্তব্যের প্রতিবাদ জানিয়ে নিসচার বিবৃতি উগান্ডায় বৃষ্টি ও ভূমিধসে ১৬ জনের প্রাণহানী