artk
সোমবার, ডিসেম্বার ৯, ২০১৯ ৬:৪৩   |  ২৫,অগ্রহায়ণ ১৪২৬
শনিবার, জুলাই ২৭, ২০১৯ ৫:৩৫

হাকালুকি হাওরে ইলিশ!

ফিচার ডেস্ক
media

মৌলভীবাজারের কুলাউড়া, জুড়ী, বড়লেখা, সিলেটে ফেঞ্চুগঞ্জ এবং গোপালগঞ্জ উপজেলাজুড়ে বিস্তৃত হাকালুকি হাওর। প্রায় ২৮ হাজার হেক্টর আয়তনের এ হাওরটি দেশের বৃহত্তম হাওর। সম্প্রতি জেলেদের জালে ধরে পড়েছে ইলিশ। অতিবৃষ্টি এবং উজান থেকে পাহাড়ি ঢল নামার কারণে পরিপূর্ণ হাওরে স্থানীয় জেলেদের জালে দেশি প্রজাতির বিভিন্ন মাছের সঙ্গে উঠে আসে ইলিশ।

মৌলভীবাজারের কুলাউড়া, জুড়ী, বড়লেখা, সিলেটে ফেঞ্চুগঞ্জ এবং গোপালগঞ্জ উপজেলাজুড়ে বিস্তৃত হাকালুকি হাওর। প্রায় ২৮ হাজার হেক্টর আয়তনের এ হাওরটি দেশের বৃহত্তম হাওর। সম্প্রতি জেলেদের জালে ধরে পড়েছে ইলিশ। অতিবৃষ্টি এবং উজান থেকে পাহাড়ি ঢল নামার কারণে পরিপূর্ণ হাওরে স্থানীয় জেলেদের জালে দেশি প্রজাতির বিভিন্ন মাছের সঙ্গে উঠে আসে ইলিশ।

স্থানীয় মৎস্য বিভাগ সূত্রে জানা যায়, স্থানীয় জেলেদের জালে ঝাঁকে ঝাঁকে উঠে এসেছে বাঙালির অতিপ্রিয় ইলিশ। আকারভেদে প্রতি মাছের দাম ৭শ’ থেকে ১২শ’ টাকা। টাটকা এবং দাম কিছুটা সাধ্যের মধ্যে হওয়ায় নানা শ্রেণির মানুষরা আনন্দের সঙ্গে এ মাছটি কিনছেন। হাকালুকি হাওরে ইলিশ পাওয়ার ব্যাপারটি অনেকটাই চাঞ্চল্যকর। 

এর আগে ২০১৬ সালেও এ হাওরে ইলিশ পাওয়া গিয়েছিল।

সুস্বাদু ইলিশ নিয়ে দীর্ঘমেয়াদী গবেষণা করে এ বিশেষ মাছটির প্রজনন ও বংশবৃদ্ধির জন্য একটি কার্যক্রম তৈরি করা হয়েছে। এটি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের ‘ইলিশ ব্যবস্থাপনা কার্যক্রম’ এর সার্বিক সুফল বলছেন ইলিশ গবেষকরা।  

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘মৎস্য’ বিভাগের ডিন ড. গিয়াস উদ্দিন আহমেদ বলেন, হাওরের সঙ্গে নদীগুলো একটি যোগসূত্র রয়েছে। এ কারণেই ইলিশ মাছগুলো দলছুট হয়ে গতিপথ পরিবর্তন করে ‘অ্যাক্সিডেন্টালি’ (দুর্ঘটনাবশত) হাওরে চলে আসতে পারে। এটি প্রকৃতিগত ব্যাপারের একটি ব্যতিক্রম। তবে ‘ইলিশ ব্যবস্থাপনা কার্যক্রম’ এর ইতিবাচক ভূমিকার কারণেই এ মাছটির প্রাচুর্যতা ফিরে এসেছে এটিও কিন্তু ঠিক।

গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের মৎস্য ও সামুদ্রিক জীববিজ্ঞান বিভাগের বিশেষজ্ঞ শিক্ষক ড. মাসুদ হোসেন খান এ ব্যাপারে বলেন, হাওরে ইলিশের সন্ধান বিষয়টি আমাদের জন্য অত্যন্ত ইতিবাচক দিক। খুবই ভালো লক্ষণ। কেননা, এটি আমাদের ইলিশ ব্যবস্থাপনা শীর্ষক দীর্ঘ গবেষণারই একটি সুফল। এ গবেষণার মাধ্যমে মা ইলিশ রক্ষা এবং জাটকা নিধন বন্ধে আমাদের কঠোর অবস্থানের কারণেই আজ আমরা এর সুফল ভোগ করছি। 

তিনি বলেন, বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলের উপকূলীয় চারটি বিশেষ এলাকা যথাক্রমে- ঢালচর, মৌলভীচর, কালীরচর ও মনপুরায় মা ইলিশ মাছগুলো ডিম ছাড়তে আসে। আশ্বিন মাসের ভরা পূর্ণিমাকে কেন্দ্র করে মা ইলিশ মাছ ধরার ওপর সুনির্দিষ্ট দিনক্ষণ নির্ধারণ করা হয়। অর্থাৎ অক্টোবরে ডিম দেওয়ার সময় মা ইলিশগুলোগুলোকে আমরা আইনের যথাযথ প্রযোগ ঘটিয়ে রক্ষা করেছিলাম। প্রায় ২২ দিন ওইসব এলাকায় মা ইলিশ শিকার সম্পূর্ণভাবে নিষিদ্ধ ছিল। এর ফলে মা ইলিশ ডিম দেওয়ার সুযোগ পেয়েছে। 

মৎস্যবিজ্ঞানীঁ ড. মাসুদ হোসেন খান বলেন, ইলিশের বৈজ্ঞানিক নাম Tenualosa ilisha। আমরা ইলিশের ওপর দীর্ঘমেয়াদী গবেষণা করে মা ইলিশ এবং পোনা ইলিশ রক্ষায় রাষ্ট্রীয় পরিকল্পনা গ্রহণ ও আইনের সহাযতায় তার বাস্তবায়নের ফলেই হাওরে ফিরে এসেছে ইলিশ। 

নিউজিল্যান্ডে অগ্নুৎপাতে ৫ পর্যটকের মৃত্যু ‘বিশ্ববিদ্যালয়কে ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানে পরিণত করছেন এক শ্রেণির শিক্ষক’ আন্তর্জাতিক ক্রীড়াঙ্গনে ৪ বছর নিষিদ্ধ রাশিয়া বিশ্বের সর্বকনিষ্ঠ প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন সানা ম্যারিন ৬৪ শতাংশ কোম্পানির শেয়ার দর কমেছে সেই শ্রীলঙ্কাকেই হারিয়ে স্বর্ণ জয় সৌম্য-শান্তদের কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে অবৈধ স্থাপনা ধ্বংসে কেন নির্দেশ নয় মন্ত্রিসভায় ভালো না করলে দায়িত্ব পরিবর্তন করা হবে: কাদের চলতি মাসেই পুরান ঢাকায় চক্রাকার বাস মিস ইউনিভার্স হলেন আফ্রিকান সুন্দরী ইতিবাচক মনোভাবে প্রজন্ম হবে দুর্নীতিবিরোধী: ড. আনিসুজ্জামান মারা গেলেন বরেণ্য অধ্যাপক অজয় রায় ধর্ষণ মামলা: যুক্তরাষ্ট্র আ.লীগের সেই নেতাকে বহিষ্কার দেশে সর্বক্ষেত্রে দুর্নীতি শুরু হয়েছে: ফখরুল সামাজিক-রাজনৈতিক দুর্নীতিই বড় দুর্নীতি: মির্জা ফখরুল শ্রমজীবীরা নয়, কর্মকর্তারাই দুর্নীতি করে: আমু পাঁচ বিশিষ্ট নারীকে বেগম রোকেয়া পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুকে অনেক ভালোবাসি: সালমান খান আর্চারির চার ইভেন্টের সব ক’টিতে সোনা জিতল বাংলাদেশ শত্রুতা করলে সবই হারাবেন কিম: ট্রাম্প অবৈধ সম্পদ নিয়ে কাউকে শান্তিতে থাকতে দেয়া হবে না: দুদক চেয়ারম্যান কায়রো থেকে রাজধানী সরাচ্ছে মিশর মিয়ানমার থেকে এলো আরও ৪১ হাজার মণ পেঁয়াজ এসএ গেমসে সোনা জিতে কাঁদলেন সোমা সমাবর্তনে উৎসবমুখর ঢাবি ক্যাম্পাস প্রেমিকার বাবা-মাকে দায়ি করে স্টামফোর্ড ছাত্রের আত্মহত্যা বাসে যৌন হয়রানি: যাত্রীকে ৬ মাসের কারাদণ্ড উগ্রবাদবিরোধী জাতীয় সম্মেলন শুরু শাজাহান খানের বক্তব্যের প্রতিবাদ জানিয়ে নিসচার বিবৃতি উগান্ডায় বৃষ্টি ও ভূমিধসে ১৬ জনের প্রাণহানী