artk
শনিবার, ডিসেম্বার ১৪, ২০১৯ ১০:৩৮   |  ৩০,অগ্রহায়ণ ১৪২৬
বুধবার, জুলাই ২৪, ২০১৯ ৪:১০

৭ সরকারি কলেজের অধিভুক্তি: ঢাবি শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে ছাত্রলীগের বাধা

স্টাফ রিপোর্টার
media

ছবি: সংগৃহীত

রাজধানীর সাত সরকারি কলেজের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধিভুক্তি বাতিলের দাবিতে বুধবার চতুর্থ দিনের মতো ভবনগুলোয় তালা ঝোলানোর চেষ্টা করলেও ছাত্রলীগের বাধার কারণে তা সম্ভব হয়নি। 

রাজধানীর সাত সরকারি কলেজের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধিভুক্তি বাতিলের দাবিতে বুধবার চতুর্থ দিনের মতো ভবনগুলোয় তালা ঝোলানোর চেষ্টা করলেও ছাত্রলীগের বাধার কারণে তা সম্ভব হয়নি। 

সকালে কর্মসূচিতে অংশ নিতে দোয়েল চত্বর থেকে টিএসসি অভিমুখী সড়কে হাঁটছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের কবি সুফিয়া কামাল হলের চার ছাত্রী। একপর্যায়ে পুষ্টি ও খাদ্যবিজ্ঞান ইনস্টিটিউটের সামনে এস এম হল শাখা ছাত্রলীগের একদল নেতা-কর্মী তাদের আটকান। নানা প্রশ্ন করে তাদের সঙ্গে মারমুখী আচরণ করতে থাকেন তারা। আহনাফ তাহমিদ নামের তড়িৎ ও ইলেকট্রনিক প্রকৌশল বিভাগের প্রথম বর্ষের এক শিক্ষার্থী ওই রাস্তা দিয়ে রিকশায় করে যাচ্ছিলেন। ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীদের কাছে গিয়ে ঘটনা জানতে চাইলে তাকে আন্দোলনকারী ভেবে ব্যাপক মারধর করা হয়। এতে তার চোখের কর্নিয়া আঘাতপ্রাপ্ত হয়।

গত মঙ্গলবার পর্যন্ত টানা তিন দিন বিশ্ববিদ্যালয়ের সব একাডেমিক ও প্রশাসনিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ করেন একদল শিক্ষার্থী। সাত কলেজ সংকটের স্থায়ী সমাধানের দাবিতে গতকাল উপাচার্য বরাবর স্মারকলিপি দেয় ছাত্রলীগ। স্মারকলিপি দেয়ার আগে দুপুরে অপরাজেয় বাংলায় এক সমাবেশে ক্লাস-পরীক্ষায় বাধা সৃষ্টিকারীদের ‘দাঁতভাঙা জবাব’ দেয়ার ঘোষণা দেন সংগঠনের নেতারা। আর তালা ঝুলিয়ে বিক্ষোভ ও ক্লাস-পরীক্ষা বর্জন কর্মসূচি অব্যাহত রাখার ঘোষণা দেন আন্দোলনকারীরা।

আন্দোলনকারীদের দাবি, আজ বিশ্ববিদ্যালয়ের ৬০টির বেশি বিভাগের শিক্ষার্থীরা স্বতঃস্ফূর্তভাবে ক্লাস-পরীক্ষা বর্জন করেছেন।

ঘোষণা অনুযায়ী, ভোর থেকেই বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন এলাকায় অবস্থান নেন ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা। তাদের অবস্থানের কারণে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা প্রশাসনিক ও একাডেমিক কোনো ভবনে তালা ঝোলাতে পারেননি। ফলে, সকাল থেকে কিছু কিছু বিভাগে ক্লাস শুরু হয়। তবে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতি আজ কম দেখা গেছে। 

ছাত্রলীগ সূত্রে জানা গেছে, আজ ভোর থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের কলাভবন এলাকা, ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদ এলাকা, রেজিস্ট্রার ভবন, শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউট, উপাচার্য কার্যালয় এলাকা, সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদ এলাকা, বিশ্ববিদ্যালয় গ্রন্থাগার এলাকা, আইন অনুষদ এলাকা, কার্জন হল এলাকা, এ এফ মুজিবুর রহমান গণিত ভবন এলাকা এবং মোকাররম ভবন এলাকায় ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা অবস্থান নেন।

বেলা সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয় গ্রন্থাগারের সামনে সংবাদ সম্মেলন করেন আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা। সেখানে আন্দোলনকারীদের মুখপাত্র ও ব্যবস্থাপনা বিভাগের শিক্ষার্থী শাকিল মিয়া কালও তালা ঝোলানো ও ক্লাস-পরীক্ষা বর্জন কর্মসূচি অব্যাহত রাখার ঘোষণা দেন। তিনি বলেন, ‘সাত কলেজের অধিভুক্তি বাতিলের দাবিতে দীর্ঘদিন ধরে আন্দোলন হচ্ছে। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন বারবার মিথ্যা আশ্বাস দিয়ে আসছে। তাই শিক্ষার্থীরা প্রশাসনের ওপর আস্থা রাখতে পারছেন না। দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আমাদের কর্মসূচি চলতে থাকবে। দাবি না মেনে যদি অনাকাঙ্ক্ষিত কিছু করা হয়, সাধারণ শিক্ষার্থীরা তা ভালোভাবে নেবে না এবং সমুচিত জবাব দেবে।’

আন্দোলনকারীদের অন্যতম সমাজবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী নাহিদ ইসলাম সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘ডাকসু নির্বাচনে ছাত্রলীগসহ প্রায় সব প্যানেলের ইশতেহারে সাত কলেজের অধিভুক্তি পুনর্বিবেচনা করার বিষয়টি ছিল। কিন্তু নির্বাচনের পর ডাকসু থেকে কোনো পদক্ষেপ নেওয়া হয়নি। ডাকসু ও উপাচার্য বরাবর এই ইস্যুতে স্মারকলিপি দিয়েও যখন কিছু হলো না, তখন আমরা বাধ্য হয়ে আন্দোলন শুরু করি। শিক্ষার্থীরা স্বতঃস্ফূর্তভাবে এ আন্দোলনে অংশ নিয়েছেন। কিন্তু গতকাল আমাদের ওপর হামলা করে ছাত্রলীগ। আজও বাধা দিয়েছে তারা।’

নাম প্রকাশ না করার শর্তে ছাত্রলীগের এক কেন্দ্রীয় নেতা বলেন, ‘ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী ভাইয়ের নির্দেশে আমরা সকাল ছয়টা থেকে অবস্থান নিই। বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্লাস-পরীক্ষা সচল করে শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখতে ছাত্রলীগ বদ্ধপরিকর।’

টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ২ ইয়াবা কারবারি নিহত সা’দত আল-মাহমুদের দুটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন ভিটামিন ডি-এর চাহিদা পূরণ করবেন কিভাবে? খুলনায় পাটকল শ্রমিকদের অনশন তিনদিনের জন্য স্থগিত মঙ্গলে অদ্ভূত অক্সিজেন বুদ্ধিজীবী স্মৃতিসৌধে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা ভারতের নাগরিকত্ব আইনের সংশোধন চায় জাতিসংঘ শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস শনিবার, শ্রদ্ধা জানাতে প্রস্তুত স্মৃতিসৌধ বিশ্বে ক্ষমতাধর নারীর তালিকায় ২৯তম শেখ হাসিনা দণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তিকে মুক্ত করা আইনের পরিপন্থী: গণপূর্তমন্ত্রী দৈনিক সংগ্রামের অফিসে ভাঙচুর, সম্পাদক পুলিশ হেফাজতে উত্তাল পরিস্থিতিতে শিলং সফর বাতিল করলেন অমিত শাহ ফিলিং স্টেশনে ৪ বছরে ৪৮ কোটি টাকার গ্যাস চুরি! ট্রাকের ধাক্কায় কবি নজরুল কলেজের শিক্ষার্থীর মৃত্যু ৪০ বছরের অভিজ্ঞতায় এত ভয়াবহ বার্ন দেখিনি: সামন্ত লাল শাজাহান খানের সম্পত্তির খোঁজ নেয়া উচিৎ: নিক্সন চৌধুরী ‘যত খুশি পেঁয়াজ নিয়া যান’ বীরগঞ্জে একসঙ্গে ২০ জোড়া এতিম তরুণ-তরুণীর বিয়ে ত্বকের যত্নে উপটান এনআরসি-সিএবি বিলের বিরুদ্ধে গণ-আন্দোলনের ডাক মমতার চাঁদপুরে গ্রাহকদের কোটি টাকা নিয়ে উধাও এনজিও জাপানের প্রধানমন্ত্রীও বাতিল করলেন ভারত সফর ২ মন্ত্রীর ভারত সফর বাতিলের কারণ জানালেন ওবায়দুল কাদের যুক্তরাজ্যে প্রথমবারের মতো এমপি সুনামগঞ্জের কন্যা আফসানা পাঞ্জাবি ও জ্যাকেটের পকেটে দুই কেজি স্বর্ণ খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে বিএনপির বিক্ষোভ সামুদ্রিক মাছে কাপড়ের রং মিশিয়ে বিক্রি নির্বাচনের ফল ব্রেক্সিটের জন্য শক্তিশালী ম্যান্ডেট: বরিস জনসন ব্রিটেন নির্বাচন: তৃতীয়বারের মতো নির্বাচিত রুপা হক টেকনাফে ৮ লাখ ইয়াবা অস্ত্র-গুলিসহ আটক ৪