artk
সোমবার, আগষ্ট ১৯, ২০১৯ ২:৫৮   |  ৪,ভাদ্র ১৪২৬

বরগুনা প্রতিনিধি

বৃহস্পতিবার, জুলাই ১৮, ২০১৯ ১১:১৮

আদালতে নিজেকে নির্দোষ দাবি মিন্নির

media

বরগুনার রিফাত শরীফ হত্যার ঘটনায় গ্রেপ্তার তার স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নি আদালতে নিজেকে নির্দোষ দাবি করেছেন। বুধবার বিকেলে আদালতের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, তার স্বামী হত্যায় তিনি জড়িত নন। 

মিন্নি এ মামলার ১ নম্বর সাক্ষী।

ওইদিন আদালতে মিন্নির পক্ষে কোনো আইনজীবী ছিলেন না। আইনজীবী না থাকায় বিচারক মিন্নিকে বলেন, “আপনার পক্ষে যেহেতু কোনো আইনজীবী নেই, তাই এ বিষয়ে আপনার কোনো বক্তব্য আছে?” 

তখন মিন্নি আদালতকে বলেন, “আমি এ হত্যাকাণ্ডে জড়িত নই। আমি সেদিন আমার স্বামীকে বাঁচানোর জন্য আপ্রাণ চেষ্টা করেছি।” 

আদালত মিন্নিকে বলেন, “এ হত্যাকাণ্ডের আগে নয়ন বন্ড ও রিফাত ফরাজীর সঙ্গে মোবাইল ফোনে আপনার অসংখ্য মেসেজ ও ফোনকল রয়েছে।”

এ বিষয়ে মিন্নি আদালতকে বলেন, “ওরা আমাকে হুমকি দিয়ে ভয়ভীতি দেখিয়েছে। যার কারণে আমি তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছি।”

পরে পুলিশ মিন্নির সাত দিনের রিমান্ড দাবি করেন। তদন্ত কর্মকর্তা পরিদর্শক মো. হুমায়ুন কবির রিমান্ড আবেদনে উল্লেখ করেন, রিফাত শরীফ হত্যাকাণ্ডে মিন্নির জড়িত থাকার বিষয়ে বেশ কিছু তথ্যপ্রমাণ পেয়েছেন। এ ছাড়া এজাহারভুক্ত একজন আসামি আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দিতে মিন্নি এই হত্যা পরিকল্পনায় ছিল বলে স্বীকারোক্তি দিয়েছেন।

হুমায়ুন কবির রিমান্ড আবেদনে আরও জানিয়েছেন, হত্যাকাণ্ডের আগের দিন প্রধান আসামি নয়ন বন্ডের সঙ্গে মিন্নির ফোনালাপের তথ্যও পাওয়া গেছে। এসব বিষয় নিশ্চিত হতে এবং মামলাটির অধিকতর তদন্তের জন্য মিন্নিকে জিজ্ঞাসাবাদ করা প্রয়োজন। এ জন্য সাত দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করার আবেদন জানান তিনি। আদালত পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে মঙ্গলবার প্রায় ১৩ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদের পর রাতে তাকে গ্রেপ্তার দেখায় পুলিশ। তখন পুলিশ সুপার মো. মারুফ হোসেন বলেছিলেন, দীর্ঘ জিজ্ঞাসাবাদ ও অন্যান্য সোর্স থেকে পাওয়া তথ্য-উপাত্তে এ হত্যাকাণ্ডে মিন্নির সম্পৃক্ততার প্রমাণ পেয়েছে পুলিশ। ব্যক্তিগত কারণ ও আক্রোশ থেকে এ রোমহর্ষক হত্যাকাণ্ড ঘটেছে। এ জন্য তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

২৬ জুন সকাল ১০টার দিকে বরগুনা সরকারি কলেজের মূল ফটকের সামনের রাস্তায় স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নির সামনে কুপিয়ে জখম করা হয় রিফাত শরীফকে। বিকাল ৪টায় বরিশালের শেরেবাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়।

হামলার পরেও মৌলিক সেবা থেকে বঞ্চিত করেছে- ভিপি নুর রাতে ঢাকায় আসছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী গুগল ম্যাপের সাহায্যে বাড়ি ফিরলো মেয়েটি নবম ওয়েজ বোর্ড নিয়ে আপিলের আদেশ মঙ্গলবার ধর্ষণের থেকে মুক্তি চাইতে গিয়ে ভাইয়ের কাছেও... রাজধানীতে ‘আল্লাহর সরকার’ ৪ জঙ্গি আটক ২০৫০-মধ্যে তলিয়ে যেতে পারে জাকার্তা মার্কিনকে চাপ অগ্রাহ্য করে জিব্রাল্টার ছাড়ল ইরানি ট্যাংকার কনস্টেবলের লক্ষ্যভ্রষ্ট গুলি এএসপির বাসায় স্বামীর লাশ দেখে মারা গেলেন স্ত্রীও পদ্মায় ফেরি-লঞ্চ সংর্ঘষ, অল্পের জন্য বেঁচে যান ৩ শতাধিক যাত্রী মেসিকে খুশি রাখতেই নেইমার ‘নাটক’ জেলা প্রশাসকের কাছে সততার পুরস্কার পেলেন অটোচালক সিরাজগঞ্জে কাপড় ব্যবসায়ীর স্ত্রী-কন্যা নিখোঁজ পেয়ারা পাড়তে গিয়ে স্কুলছাত্রীর করুণ মৃত্যু খুলনার সঙ্গে রেল যোগাযোগ বন্ধ ভারত পরমাণু যুদ্ধ বাধাতে পারে: ইমরান খান রাঙামাটিতে সন্ত্রাসীদের গুলিতে সেনা সদস্য নিহত এক মাসেই তিনবার বাড়লো সোনার দাম ছাত্রদলের নেতেৃত্বে আসতে মনোনয়নপত্র কিনলেন ১০৮ জন ‘অদৃশ্য খুঁটির’ জোরে ৪ লাখ টাকার গাছ ৮০ হাজার টাকায় বিক্রি সিপিডির ভবনে এডিস মশার লার্ভা, ২০ হাজার টাকা জরিমানা শোক দিবসের আলোচনা সভা করবেন ড. কামাল চামড়া শিল্পে আপাতত সমস্যা নেই: শিল্পমন্ত্রী শোক দিবসের অনুষ্ঠানে ছাত্রলীগের রক্তদান সোমবার রাতে ঢাকায় আসছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী অতিরিক্ত ডিআইজি হলেন পুলিশের ২০ কর্মকর্তা এএসপির মেয়ের টেবিলের ওপর আঘাত হানলো কনস্টেবলের গুলি চামড়া বিক্রি বন্ধের সিদ্ধান্তে নেই আড়তদাররা দেশে এলো কলকাতায় নিহত ২ বাংলাদেশির মরদেহ