artk
বুধবার, জুলাই ২৪, ২০১৯ ১:৫৫   |  ৯,শ্রাবণ ১৪২৬
মঙ্গলবার, জুন ১৮, ২০১৯ ৭:৫১

হিস্টিরিয়া শারীরিক নয়, মানসিক রোগ!

স্বাস্থ্য ও পুষ্টি ডেস্ক
media
মেডিক্যাল চিকিৎসার মাধ্যমে রোগীর মনের ভেতরে লুকিয়ে থাকা ভয়, দ্বন্দ্ব, মানসিক সংঘাত রয়েছে তা জানা যায়।

হিস্টিরিয়া মানসিক রোগ এটা গ্রামাঞ্চলের অনেক মানুষ জানেই না। মানুষের মধ্যে কুসংস্কার, অতীতের ভাবনায় বিশ্বাস, অপবিশ্বাস আর অতীতের অপরিচ্ছন্ন দৃষ্টিভঙ্গির কারনে গ্রামে বা শহরে অহরহ হিস্টিরিয়া রোগের সঠিক চিকিৎসা হচ্ছে না। হিস্টিরিয়া রোগে আক্রান্ত রোগীর অস্বাভাবিক আচরণ তাদের কাছে জীন, ভূত, প্রেতের আছর! তাই তারা নিজেদের বিশ্বাসমত জীন, ভূত, প্রেতের আছর থেকে বাঁচানোর জন্য নানা রকম অপচিকিৎসা করে থাকে, যার ফলে হিতে বিপরীতই হয়। তারা ওঝা এনে ঝাড়ফুঁক করায়। কুসংস্কারাচ্ছন্ন এমন অপচিকিৎসায় রোগীর আরো বেশি ক্ষতি হয় এবং সঠিক চিকিৎসায় দেরি হওয়ায় রোগী আরো অসুস্থ হয়ে পড়ে। অথচ মানসিক বিশেষজ্ঞদের পরামর্শে সুচিকিৎসা করানো হলে রোগী খুব তাড়াতাড়ি আবার আগের সুস্থ, স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসে।

মানসিক বিশেষজ্ঞদের মতে, হিস্টিরিয়া বা মুর্ছা রোগের জন্য আধুনিক মনোবৈজ্ঞানিক চিকিৎসা রয়েছে। চিকিৎসার পাশাপাশি বেশকিছু পদ্ধতি ব্যবহার করেন চিকিৎসকরা। হিস্টিরিয়ায় আক্রান্ত রোগীকে হিস্টিরিক্যাল উপসর্গের বিষয়ে সাহস জোগানো, ভ্রান্ত ধারণা থেকে বেরিয়ে এনে এবং বিভিন্ন পরামর্শ ও উপদেশ দিয়ে এই অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসতে সাহায্য করেন চিকিৎসকরা। রোগীর সাথে সবসময় স্বাভাবিক আচরণ করতে হবে এবং রোগীর সাথে বিভিন্ন বিষয়ে খোলামেলা আলোচনায় আশ্বস্ত করতে হবে যে, এটা কোন শারীরিক রোগ নয় বরং মানসিক রোগ। ঠিকঠাক চেষ্টা করলে এই রোগ থেকে মুক্তি লাভ করা সম্ভব এবং স্বাভাবিক জীবন লাভ করা যাবে। মানসিক বিশেষজ্ঞরা রোগীর সাথে কথা বলে মনের ভেতরে লুকিয়ে থাকা ভয় জানার চেষ্টা করেন এবং মনের ভেতরে লুকানো ভয় দূর করানোর চেষ্টা করেন। চিকিৎসকরা রোগীকে এ সমস্যা থেকে বেরিয়ে আসার ব্যবস্থা করেন।

মেডিক্যাল চিকিৎসার মাধ্যমে রোগীর মনের ভেতরে লুকিয়ে থাকা ভয়, দ্বন্দ্ব, মানসিক সংঘাত রয়েছে তা জানা যায়। এ চিকিৎসায় রোগী ঘুমের ঘোরে থাকে এবং অবচেতন মনের দ্বন্দ্বগুলো বেরিয়ে আসে। এমন অনেক বিষয় থাকে যা মানুষ চেতন মনে বলতে পারেনা কিন্তু অবচেতন মনে তা খুব সহজেই বলে দিতে পারে। মনের ভেতর লুকিয়ে থাকা ভয়, কষ্ট, দ্বন্দ্ব বলে মনের ভার কমাতে পারে।

এই রোগে আক্রান্ত রোগীকে স্বাভাবিক জীবনে ফিরিয়ে আনার জন্য সাহস জোগাতে হবে। বিবাহিত মহিলার ক্ষেত্রে অবশ্যই স্বামীকেও চিকিৎসা ব্যবস্থার আওয়াত আনতে হবে। প্রয়োজন হলে পরিবারেও কাউন্সিলিং করাতে হবে। হিস্টিরিয়া মানসিক রোগ, শারীরিক নয় এটা আগে জানা দরকার এবং সে অনুযায়ী চিকিৎসার ব্যবস্থা করলে খুব সহজেই সুস্থ স্বাভাবিক জীবনে ফিরিয়ে আনা সম্ভব। সূত্র: ডব্লিউসি

‘গুজব ছড়ানোর’ দায়ে ১০ নিউজ পোর্টাল বন্ধ বিশুদ্ধ পানি চাই: হাইকোর্ট যাত্রা শুরু করলো ‘ছারপোকা ব্লাড ব্যাংক’ অ্যাপ ঢাকা থেকে ডেঙ্গু নিয়ে বাড়ি যাচ্ছে রোগীরা রাজধানীতে অটোরিকশাকে বাসের ধাক্কা, ২ যুবক নিহত মামলার ১২ দিনেও আটক হয়নি কোনো আসামি টেকনাফে কথিত বন্দুকযুদ্ধে দুজন নিহত তিল-আচিল তুলে ফেলা সম্ভব ক্রায়োসার্জারিতে বরিস জনসন: ব্রেক্সিট চুক্তি না হলে কী ঘটতে পারে? ঘুম কম হলে বাড়বে ভুলের পরিমাণ! নকল বউ নাবিলাকে নিয়ে ঈদে আসছেন মিশু পশ্চিমবঙ্গে সাংবাদিক ছাঁটাই বন্ধে আইন চালুর প্রস্তাব মমতার নাটোরে স্কুলশিক্ষিকাকে ছুরিকাঘাতে হত্যা রাজধানীর দুই স্থানে বোমা উদ্ধার কাশিয়ানীতে অবৈধভাবে চলছে এমা ক্লিনিক বান্দরবানে ইউনিয়ন আ. লীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা শানুর সঙ্গে দ্বৈত গাইবেন পড়শী কুমিল্লা টেলিভিশন জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের নবনির্বাচিত সদস্যদের অভিনন্দন চট্টগ্রামে বস্তিতে আগুন, পুড়ে মা-মেয়ের মৃত্যু বাড্ডায় পিটিয়ে হত্যা: প্রধান আসামি হৃদয় সন্দেহে আল আমিন আটক মগবাজারে দুই সাংবাদিক অগ্নিদগ্ধ বিয়ের পিঁড়িতে বসছেন রণবীর-আলিয়া! ভরিতে ১ হাজার ১৬৭ টাকা বাড়লো সোনার দাম বিচারবহির্ভূত হত্যার পরিমাণ কমেছে: আইনমন্ত্রী ডাকসুর টাকায় তালা কেনায় সমর্থন দেয়ায় ভিপি নূরকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা কুমিল্লায় পানিতে ডুবে ভাই-বোনসহ ৩ শিশুর মৃত্যু বিনা দাওয়াতে বিয়ে বাড়িতে ঢুকে পড়লেন ট্রাম্প! বেসরকারি হজ এজেন্সিকে জরুরি চিঠি ধর্ম মন্ত্রণালয়ের বাজারে আসছে কাওয়াসাকির নতুন দুই বাইক ২০ দিনের ব্যবধানে ফের বাড়লো সোনার দাম