artk
শনিবার, জুন ১৫, ২০১৯ ১১:১০

এক মাস্টারেই চলছে দুই রেল স্টেশনের কার্যক্রম!

তরিকুল ইসলাম মিঠু, যশোর প্রতিনিধি
media
রেলওয়েতে জনবল সংকটের কারণে অনেক স্টাফ দিয়ে একাধিক কাজ করানো হয়। তারই ধারাবাহিকতা হিসেবে আমাকে দিয়ে দুই স্টেশনের দায়িত্ব পালন করানো হচ্ছে।

যশোরের দু’টি রেল স্টেশনে একই মাস্টার দিয়ে চলছে কার্যক্রম। ফলে যেকোনো মুহূর্তে ঘটে যেতে পারে বড় ধরনের দুর্ঘটনা। অপূরণীয় ক্ষতি হয়ে যেতে পারে এ রুটে চলাচলকারী যাত্রীদের জানমালের এমন আশংষ্কা প্রকাশ করেছে এলাকার নিয়মিত রেল যাতায়াতকারী যাত্রীরা।

স্টেশন দু’টি হলো যশোর ও বেনাপোল। উভয় স্টেশন দু’টি রেল জংশন হওয়ায় স্টেশন দু’টিতে স্টেশন মাস্টারের গুরুত্ব অপরিসীম বলে জানিয়েছে একাধিক যাত্রী।

সরেজমিন অনুসন্ধানে জানা যায়, গত তিন মাস আগে যশোর রেলস্টেশনে দায়িত্বে থাকা অবস্থায় অবসরে যান স্টেশন মাস্টার শ্রী পুষ্পল কুমার মণ্ডল। এ গুরুত্বপূর্ণ স্টেশনটি গত তিন মাস ধরে মাস্টারশূন্য ছিল।

অপরদিকে গত চার বছর ধরে বেনাপোল রেলস্টেশনের মাস্টার হিসাবে দায়িত্বরত আছেন সাইদুর রহমান। গত এক সপ্তাহ ধরে যশোর স্টেশন মাস্টারের রুমের সামনে স্টেশন মাস্টার হিসেবে সাইদুর রহমানে নেমপ্লেট ঝুলানো হয়েছে। তবে সপ্তাহ ধরে তার অফিসে গিয়ে এক দিনও তাকে পাওয়া যায়নি।

বিষয়টি নিয়ে সহকারী নারী স্টেশন মাস্টার নিগার সুলতানার কাছে জানতে চাইলে তিনি নিউজবাংলাদেশকে ডটকমকে বলেন, স্টেশন মাস্টার সাইদুর রহমান বর্তমানে দু’টি রেল স্টেশনের একই সাথে দায়িত্বে পালন করছেন। সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৬টা পর্যন্ত তিনি বেনাপোল রেলস্টেশনের দায়িত্বে থাকেন। এর পর সন্ধায় বেনাপোল থেকে ফিরে এসে তিনি যশোর রেলস্টেশনের দায়িত্বে থাকেন। এভাবেই চলছে যশোর রেলস্টেশনের মাস্টার পদের কার্যক্রম।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে রেলের এক কর্মচারী জানান, যশোর রেল স্টেশন থেকে মাস্টার অবসরে গেছে প্রায় চার মাস আগে। কিন্তু এখানে এখনো কোন স্টেশন মাস্টার আসেনি। যে কারণে এখানকার স্টাফরা তাদের খেয়াল-খুশি মতো চলে। তাছাড়া এখানে প্রায় একশ লোক তাদের অবসরের টাকা পয়সা নিতে আসেন। স্টেশন মাস্টার না থাকায় রেলের অবসর প্রাপ্তরা টাকা তুলতে চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছে প্রতিনিয়ত।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে অপর এক কর্মচারী জানান, যশোর রেলস্টেশনে অনেক মাস্টার আসার জন্য মুখিয়ে থাকে। কিন্তু উপরের কর্তা ব্যক্তিদের চাহিদা মোতাবেক ম্যানেজ করতে না পারলে এ স্টেশনে পোস্টিং দেন না।

সবাই এ স্টেশনে আসার আগ্রহের কারণ জানতে চাইলে তিনি জানান, এখানে টিকিট নিয়ে নয় ছয় আছে। এখানকার স্টেশন মাস্টারের সহযোগিতায় কাউন্টারের কিছু অসাধু লোক আছেন। যারা আগে থেকে দুরপাল্লার ট্রেনগুলোর টিকিট কেটে রাখেন। পরে দালাল বা পরিচিত জনদের মাধ্যমে অধিক মূল্যে ট্রেনের টিকিটগুলো বিক্রি করে থাকেন। কোন যাত্রী তিন দিন আগে কাউন্টারে গেলেও কাউন্টার থেকে বলা হয় ট্রেনের কোনো টিকিট নেই।

শাহিন, রাসেল, ইমরান, সুজনসহ একাধিক যাত্রী জানায়, তারা চার দিন আগে ঢাকাতে যাওয়ার জন্য স্টেশনের টিকিট কাউন্টারে গিয়েছিল টিকিট সংগ্রহের জন্য। কিন্তু কাউন্টার থেকে জানিয়ে দেওয়া হয় এক সপ্তাহের মধ্যে কোন টিকিট নেই।

বিষয়টি নিয়ে স্টেশন মাস্টার সাইদুর রহমাননের কাছে জানতে চাইলে তিনি নিউজবাংলাদেশকে বলেন, রেলওয়েতে জনবল সংকটের কারণে অনেক স্টাফ দিয়ে একাধিক কাজ করানো হয়। তারই ধারাবাহিকতা হিসেবে আমাকে দিয়ে দুই স্টেশনের দায়িত্ব পালন করানো হচ্ছে।

বাড়তি দায়িত্ব নেওয়ার জন্য কোন বেতন ভাতা দেওয়া হবে কি না তা জানতে চাইলে তিনি জানান, এর জন্য কোন বেতন ভাতা কর্তৃপক্ষ দেবে না। তবে এখানে তো আর কোন স্টেশন মাস্টার নেই।

আমি যাতে পরবর্তীতে স্থায়ীভাবে এ স্টেশনে দায়িত্ব পালন করতে পারি তার জন্য একই সাথে দু’স্টেশনের দায়িত্ব পালন করছি বলে তিনি জানান।

পশুর চেয়েও নিকৃষ্ট ধর্ষক: প্রধানমন্ত্রী করোনা ভাইরাসের কারণে হজে যাওয়া না হলে টাকা ফেরত: ধর্ম প্রতিমন্ত্রী দাঙ্গা নয়, দিল্লিতে পরিকল্পিত গণহত্যা হয়েছে: মমতা ভারতের সম্মান তলিয়ে দিয়েছে মোদি সরকার: মমতা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় হচ্ছে সুনামগঞ্জে এনামুল-রুপন ছয় দিনের রিমান্ডে পিরোজপুরে সাবেক ইউপি সদস্যকে কুপিয়ে হত্যা চলতি বছরই তিস্তা চুক্তির সম্ভাবনা: শ্রিংলা ঢাকা উত্তরের নির্বাচন বাতিল চেয়ে তাবিথের মামলা খুলনায় ছাত্রলীগ নেতাকে পিটিয়ে হত্যা অভিনেতা গোলাম মুস্তাফার জন্মদিন সোমবার আদালতে টাউট-বাটপার শনাক্তের নির্দেশ পাওয়ার ট্রলিকে ধাক্কা দিয়ে বিকল রেলইঞ্জিন কলকাতা সফরে এসে প্রবল বিক্ষোভের মুখে অমিত শাহ রোবট চালাবে গাড়ি! ভিপি নূরকে হত্যার হুমকি দেয়ার পর দুঃখ প্রকাশ টেকনাফে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ৭ জন নিহত রাখাইনপ্রদেশে সেনাদের গুলিতে শিশুসহ ৫ রোহিঙ্গা নিহত ইস্কাটনে ভবনে আগুন: মায়ের পর চলে গেলেন রুশদির বাবাও চট্টগ্রামে একটি বস্তিতে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ২ দেশে প্রতিদিন যক্ষ্মায় মারা যায় ১৩০ জন: স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনাভাইরাস আতঙ্কে আয়ারল্যান্ডের স্কুল বন্ধ ঘোষণা বিশিষ্ট সুরকার সেলিম আশরাফ আর নেই মোদীকে অতিথি হিসেবে সর্বোচ্চ সম্মান দেওয়া হবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী মধুর যত জাদুকরী গুণ চিপসের প্যাকেটের ভিতর খেলনা নয়: হাইকোর্ট আমার গাড়িতেও অস্ত্র আছে কী না আমি জানি না: শামীম ওসমান ফ্র্যান্সেও করোনা, অনিশ্চিত কান চলচ্চিত্র উৎসব উপনির্বাচন: গাইবান্ধা-৩ আসনে প্রতীক বরাদ্দ গুজব ও গণপিটুনি রোধে হাইকোর্টের ৫ নির্দেশনা