artk
বৃহস্পতিবার, আগষ্ট ২২, ২০১৯ ১০:৪৬   |  ৭,ভাদ্র ১৪২৬

স্টাফ রিপোর্টার

রোববার, মে ১৯, ২০১৯ ৬:২১

কেউই আইনের ঊর্ধ্বে নয়: দুদক চেয়ারম্যান

media

সময় মতো সরকারি সেবা প্রদান করতে না পারলে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তার বেতন থেকে জরিমানা আদায়ের ব্যবস্থা করা হলে প্রশাসন জনগণের কাছে যেতে বাধ্য হবে বলে এমন মন্তব্যে করেছেন দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ।

সময় মতো সরকারি সেবা প্রদান করতে না পারলে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তার বেতন থেকে জরিমানা আদায়ের ব্যবস্থা করা হলে প্রশাসন জনগণের কাছে যেতে বাধ্য হবে বলে এমন মন্তব্যে করেছেন দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ।

রোববার সকালে চাঁদপুর জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা পর্যায়ের কর্মকর্তাদের সঙ্গে দুর্নীতি প্রতিরোধে তাদের ভূমিকা শীর্ষক এক মতবিনিময় সভায় তিনি এ কথা বলেন। 

চেয়ারম্যান বলেন, শুধু মানুষকে গ্রেফতার করে জেলে ঢুকানো দুদকের কাজ নয়, বরং দুর্নীতি ঘটার আগেই সতর্ক করা দুদকের অন্যতম কাজ। আমার কর্মকালের প্রথম বছরেই দুর্নীতির মামলার অনেক আসামিকে গ্রেফতার করা হয়। আমরা একটা বার্তা দিতে চেয়েছিলাম যে, কেউই আইনের ঊর্ধ্বে নয়। সে বার্তা আমরা দিয়েছি এবং এটা প্রমান হয়েছে আইনের ঊর্ধ্বে কেউ নয়।

চাঁদপুর জেলায় বিগত ২০১৭ ও ২০১৮ সালে প্রাপ্ত অভিযোগের পরিসংখ্যান তুলে ধরে দুদক চেয়ারম্যান বলেন, অন্যান্য জেলার তুলনায় চাঁদপুর জেলায় দুর্নীতির অভিযোগ তুলনামূলকভাবে কম। আগামী ১ বছরে চাঁদপুরকে দুর্নীতিমুক্ত বা সবচেয়ে কম দুর্নীতিগ্রস্ত জেলা হিসেবে প্রতিষ্ঠা করা যায় কি না?” 

প্রশ্ন রেখে দুদক চেয়ারম্যান বলেন, এজন্য জেলা পর্যায়ের কর্মকর্তাদের সমন্বয়ে “দুর্নীতিমুক্ত জেলা বাস্তবায়ন  কমিটি” গঠন করা যেতে পারে। এছাড়া প্রতিটি সরকারি দপ্তরে “এই অফিস দুর্নীতিমুক্ত” এ জাতীয় বিলবোর্ড স্থাপন করার আহ্বান জানান। 

এ প্রসঙ্গে তাৎক্ষণিকভাবে জেলা প্রশাসক মো. মাজেদুর রহমান খান জানান শীঘ্রই সুনর্দিষ্ট কর্মপরিধি সংযোজন করে এই কমিটি গঠন করা হবে। দুদক চেয়ারম্যান বলেন, দেশের দুর্নীতির চেয়েও শিক্ষা ব্যবস্থা বড় সমস্যা। আমাদেরকে নৈতিক শিক্ষায় সক্ষম মানবসম্পদ সৃষ্টি করতে হবে। এজন্য প্রয়োজন মানসম্মত শিক্ষা। 

জেলা পর্যায়ের কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আপনারা নিজেরা দুর্নীতিমুক্ত থাকলে জেলা পর্যায়ে দুর্নীতি করা অত্যন্ত কঠিন। স্বস্ব কর্মপ্রক্রিয়া সংস্কার করে সুনির্দিষ্ট টাইম লাইন বেধে দিয়ে সরকারি সেবা প্রদান করলে দুর্নীতি কমে আসবে এবং জন হয়রানি লাঘব পাবে বলে তিনি জেলা কর্মকর্তাদের কার্যপ্রক্রিয়া সংস্কারের আহ্বান জানান।  

সময়মতো সরকারি সেবা প্রদান করতে না পারলে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তার বেতন থেকে জরিমানা আদায়ের ব্যবস্থা করা হলে প্রশাসন জনগণের কাছে যেতে বাধ্য হবে বলে তিনি মন্তব্য করেন। এখন যেভাবে প্রশাসন চলছে এটাকে দোকান চালানোর মতো অবহিত করে দুদক চেয়ারম্যান বলেন, প্রশাসনকেই জনগণের কাছে গিয়ে সেবা দিতে হবে। এটাই আধুনিক প্রশাসনিক ব্যবস্থা। 

সরকারি সেবা প্রদানের নামে মানুষের কাছ থেকে যারা অর্থ নিবেন তাদের প্রতি দুদকের নজর আছে জানিয়ে তিনি বলেন, এক্ষেত্রে আইন প্রয়োগে দুদকের কোন অনুমতির প্রয়োজন নেই। দুদক স্বাধীনভাবে এ দায়িত্ব পালন করছে। বিগত ৩ বছরে দুদককে কেউ চাপ দেয়নি। যা করেছি আমরা নিজেরা চিন্তাভাবনা করে করেছি। ভুল করলে আমরা করেছি ঠিক করলেও আমরা করেছি। এখানে কাউকে চাপ বা হস্তক্ষেপ প্রদানের সুযোগ দেয়া হয়নি। 

পুলিশের বিদ্যমান সেবা প্রক্রিয়াকে জনবান্ধব করার লক্ষ্যে তিনি বলেন, পুলিশ শুধু আসামি গ্রেফতার করতে নাগরিকের বাড়িতে যাবে তা নয় বরং তাদের বাড়িতে যাবে তাদের কুশলাদী জানতে। তাদের সুবিধা-অসুবিধা জানার জন্য। যদি কোন অসুবিধা থাকে তা হলে এর সমাধান করবে। এমন পুলিশ হলে তাদের প্রতি মানুষের ভয় থাকবে না। পুলিশ হবে জনবান্ধব। মানুষ পুলিশকে তখন ভয় পাবে না। 

স্থানীয় জেলা প্রশাসক মো. মাজেদুর রহমান খানের সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো. মিজানুর রহমান, ভারপ্রাপ্ত সিভিল সার্জন ডা. মাহবুবুর রহমান প্রমুখ।

বিয়ের গেটেই বরের মাথা ফাটালো কনেপক্ষ রাখাইনে প্রবেশাধিকার চায় ইউএনএইচসিআর-ইউএনডিপি ১৫ ও ২১ আগস্ট নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য: মাউশি পরিচালক ওএসডি থানা থেকে পুলিশের জব্দ করা মোটরসাইকেল চুরি ৫ দিনের রিমান্ডে ভারতের সাবেক অর্থমন্ত্রী কাশ্মিরে জুমার নামাজের পর কারফিউ ভাঙার ডাক বাজারের ব্যাগে ৫ কোটি টাকার হেরোইন! প্রাথমিকে আরো ২০ হাজার শিক্ষক নিয়োগ সাব-রেজিস্ট্রার অফিসকে ভূমি মন্ত্রণালয়ের অধীনে আনার সুপারিশ দেড় বছর ধরে স্বাস্থ্যকেন্দ্রে আসেন না ডাক্তার জাকির নায়েকের বিরুদ্ধে রেড অ্যালার্ট জারির উদ্যোগ পরমাণু বোমা আমরা এমনি এমনি রাখিনি: জাভেদ মিয়াঁদাদ কলকাতায় বাংলাদেশির মৃত্যু: আরসালান নয় চালক ছিলেন বড় ভাই রাগিব রাজধানীসহ দেশের ৬ স্থানে দুদকের অভিযান ভারতের সবচেয়ে ধনী অভিনেতা অক্ষয় কুমার! শুরুতেই ফিটনেসে মনোযোগী বাংলাদেশি কোচ কেমন আছেন মিয়ানমারের মুসলমান নাগরিকেরা? বেশি নম্বর দেয়ার কথা বলে ছাত্রীকে যৌন হয়রানি, শিক্ষক বরখাস্ত উপহাসকারী রিজভীদেরও বিচার হওয়া উচিত: তথ্যমন্ত্রী ডা. জাফরুল্লাহসহ ৭৬ জনের বিরুদ্ধে আ.লীগ নেতার মামলা ওজনে কারচুপি: ২ প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে বিএসটিআইয়ের মামলা বজ্রপাতে ৫ জেলায় ৯ জনের মৃত্যু যাত্রাবাড়ীতে বাসের ধাক্কায় বাবা নিহত, ছেলে আহত তিন বিচারপতির বিষয়ে অনুসন্ধান অন্যদের জন্য বার্তা রোহিঙ্গাদের থাকতে প্ররোচনা দিলে ব্যবস্থা নেয়া হবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী পুঁজিবাজারে সূচকের উত্থান বিচার বিভাগের অনেকের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ আছে: খোকন ভুল চিকিৎসা: ঢাবি শিক্ষার্থীকে ৫ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ নয় কেন অনুসন্ধানে ব্যর্থরা অন্য প্রতিষ্ঠানে কাজ করুন: দুদক চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে ফরমায়েশি সাজা দেয়া হয়েছে: রিজভী