artk
শনিবার, জুলাই ১১, ২০১৫ ৬:১৩
ঈদে বাড়ি ফেরা

ঝিনাইদহে মহাসড়কের বেহাল দশা

media

ঝিনাইদহ: ঝিনাইদহ-চুয়াডাঙ্গা মহাসড়কের ঝিনাইদহ অংশের সড়কের অবস্থা খুবই বেহাল। দীর্ঘদিন ধরে চলা সংস্কার কাজ এবং মাঝে-মধ্যে বৃষ্টির ফলে সড়কটির সংস্কার হওয়ার পরিবর্তে প্রায় জায়গায়ই সৃষ্টি হয়েছে বড় বড় গর্তের।

সম্প্রতি কদিনের টানা বৃষ্টিতে সড়কটির আরও বেহাল দশার সৃষ্টি হয়েছে। ফলে ব্যাহত হচ্ছে যান চলাচল। এ অবস্থা চলতে থাকলে ঈদে ঘরমুখো মানুষকে দুর্ভোগ পোহাতে হবে এমন আশঙ্কাই করছেন স্থানীয়রা।

ঝিনাইদহ-চুয়াডাঙ্গা মহাসড়কের ঝিনাইদহ অংশে ২০ কিলোমিটার সড়কে দীর্ঘদিন ধরে ধীরগতিতে চলছে প্রশস্তকরণ ও সংস্কার কাজ। কখনও থেমে থেমে, আবার কখনও বন্ধ থাকছে সংস্কার কাজ। আর বৃষ্টি হলে তো কথাই নেই, বন্ধ হয়ে যায় সমস্ত কাজ।

ইতোমধ্যে ২০ কিলোমিটারের মধ্যে মাত্র ৫ কিমি সড়কের সংস্কার কাজ শেষ হয়েছে। সড়কটির ঝিনাইদহ শহরের চুয়াডাঙ্গা বাসস্ট্যান্ড থেকে পল্লি বিদ্যুৎ অফিস, হলিধানী থেকে ডাকবাংলা পর্যন্ত সৃষ্টি হয়েছে বড় বড় গর্তের। এমনকি গোটা সড়কেই রয়েছে অসংখ্য ছোট-বড় গর্ত। একটু বৃষ্টি হলেই গর্ত হয়ে যানবাহন চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ে।

এই সড়কটি দিয়েই ঝিনাইদহ-চুয়াডাঙ্গা হয়ে দিনে অর্ধশতাধিক ট্রিপে ঢাকাগামী বাস চলাচল করে এবং স্থানীয় রুটে কয়েক শতাধিক বাস-ট্রাক চলাচল করে।

বাস চালকেরা জানালেন, বড় বড় গর্তের কারণে আমরা ঠিকমত বাস চালাতে পারি না। আমাদের খুব সমস্যা হচ্ছে। ঈদের কারণে যাত্রীর চাপ বেশি, তাই রাস্তা যদি ঠিক না করা হয়, তাহলে বাস চালানো অসম্ভব হয়ে যাবে। তাই দ্রুত এ সড়কটি যান চলাচলের উপযোগী করার জন্য দাবি জানাচ্ছি।

স্থানীয়দের অভিযোগ, ঠিকাদাররা সড়ক মেরামতে ও সংস্কার কাজে ব্যবহার করছে অত্যন্ত নিম্নমানের ইট, বালি, পাথর। আর সংস্কার কাজ চলছে অত্যন্ত ধীরগতিতে। ফলে সড়কের এ বেহাল দশা।

সড়কটি মেরামতের কাজে নিয়োজিত থাকা ঠিকাদার বাবুল আজাদ জানান, সড়ক সংস্কারের কাজ অত্যন্ত দ্রুত গতিতেই চলছে। এখানে কোনো অনিয়ম বা গাফিলতি করা হচ্ছে না।

ঝিনাইদহ সড়ক ও জনপথ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী রফিকুল ইসলাম জানান, কাজ দেরি হওয়ার পেছনে ঠিকাদারদের একটু গাফিলতি তো আছেই। ঈদের আগেই সড়ক যান চলাচলের উপযোগী করা হবে। তবে পূর্ণাঙ্গ কাজ শেষ হতে এখনও অনেক সময় লাগবে।

ঝিনাইদহ-চুয়াডাঙ্গা-মেহেরপুর-মুজিবনগর মহাসড়ক (সড়কের সর্বমোট দৈর্ঘ্য ৮২ কিমি) প্রশস্তকরণের লক্ষ্যে ২০১১ সালের জানুয়ারি মাসে প্রকল্প হাতে নেওয়া হয়, এর মেয়াদ শেষ হওয়ার কথা ছিল ২০১৩ সালের ডিসেম্বরে। এ মহাসড়কের ঝিনাইদহ অংশে রয়েছে ২০ কিলোমিটার। প্রকল্প ব্যয় ধরা হয়েছিল ১৮০ কোটি ৯৩ লাখ ৯৮ হাজার টাকা।  ঝিনাইদহের জন্য বরাদ্দ ছিল ৪৪ কোটি ১৪ লক্ষ টাকা। কিন্তু নির্ধারিত সময় পেরিয়ে গেছে আরও প্রায় দুই অর্থবছর পার হতে চলেছে, তবু শেষ হয়নি কাজ।

নিউজবাংলাদেশ.কম/কেজেএইচ

পশুর চেয়েও নিকৃষ্ট ধর্ষক: প্রধানমন্ত্রী করোনা ভাইরাসের কারণে হজে যাওয়া না হলে টাকা ফেরত: ধর্ম প্রতিমন্ত্রী দাঙ্গা নয়, দিল্লিতে পরিকল্পিত গণহত্যা হয়েছে: মমতা ভারতের সম্মান তলিয়ে দিয়েছে মোদি সরকার: মমতা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় হচ্ছে সুনামগঞ্জে এনামুল-রুপন ছয় দিনের রিমান্ডে পিরোজপুরে সাবেক ইউপি সদস্যকে কুপিয়ে হত্যা চলতি বছরই তিস্তা চুক্তির সম্ভাবনা: শ্রিংলা ঢাকা উত্তরের নির্বাচন বাতিল চেয়ে তাবিথের মামলা খুলনায় ছাত্রলীগ নেতাকে পিটিয়ে হত্যা অভিনেতা গোলাম মুস্তাফার জন্মদিন সোমবার আদালতে টাউট-বাটপার শনাক্তের নির্দেশ পাওয়ার ট্রলিকে ধাক্কা দিয়ে বিকল রেলইঞ্জিন কলকাতা সফরে এসে প্রবল বিক্ষোভের মুখে অমিত শাহ রোবট চালাবে গাড়ি! ভিপি নূরকে হত্যার হুমকি দেয়ার পর দুঃখ প্রকাশ টেকনাফে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ৭ জন নিহত রাখাইনপ্রদেশে সেনাদের গুলিতে শিশুসহ ৫ রোহিঙ্গা নিহত ইস্কাটনে ভবনে আগুন: মায়ের পর চলে গেলেন রুশদির বাবাও চট্টগ্রামে একটি বস্তিতে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ২ দেশে প্রতিদিন যক্ষ্মায় মারা যায় ১৩০ জন: স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনাভাইরাস আতঙ্কে আয়ারল্যান্ডের স্কুল বন্ধ ঘোষণা বিশিষ্ট সুরকার সেলিম আশরাফ আর নেই মোদীকে অতিথি হিসেবে সর্বোচ্চ সম্মান দেওয়া হবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী মধুর যত জাদুকরী গুণ চিপসের প্যাকেটের ভিতর খেলনা নয়: হাইকোর্ট আমার গাড়িতেও অস্ত্র আছে কী না আমি জানি না: শামীম ওসমান ফ্র্যান্সেও করোনা, অনিশ্চিত কান চলচ্চিত্র উৎসব উপনির্বাচন: গাইবান্ধা-৩ আসনে প্রতীক বরাদ্দ গুজব ও গণপিটুনি রোধে হাইকোর্টের ৫ নির্দেশনা