artk
শনিবার, আগষ্ট ১৭, ২০১৯ ৫:৫১   |  ২,ভাদ্র ১৪২৬

শেরপুর সংবাদদাতা

রোববার, মে ১২, ২০১৯ ১:১৩

শেরপুরের গারো পাহাড়ে জনপ্রিয় হচ্ছে মৌচাষ

media

শেরপুর জেলার গারো পাহাড় এলাকায় মৌচাষ দিন দিন জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। চাষকৃত মধু আহরণের মাধ্যমে অনেক পরিবার স্বচ্ছল জীবন যাপন করতে শুরু করেছেন।

মৌচাষের ফলে পরাগায়নের মাধ্যমে যেমন কৃষিতে ফলন বাড়ছে, তেমনি মধু বিক্রি করে অর্থনৈতিকভাবেও স্বাবলম্বী হচ্ছেন মৌচাষিরা।

সরেজমিন ঘুরে এবং জেলা কৃষি বিভাগ সূত্র জানা যায়, বর্তমানে শুধু সরিষার মৌসুমেই নয়, বরং সারাবছরই সীমান্তবর্তী শ্রীবরদী, ঝিনাইগাতী ও নালিতাবাড়ী উপজেলার গারো পাহাড় এলাকার গজারি বনে বাক্সে মৌমাছি পালন করে মধু চাষ করছেন তিনশতাধিক মৌচাষি।

যারা বৃহৎ পরিসরে মৌচাষ করছেন তাদের একশ থেকে আড়াইশ বাক্স রয়েছে। আবার অনেকে পারিবারিকভাবে দুই থেকে চারটি বাক্সের মাধ্যমে মৌচাষ করছেন।

মূলত, উন্নত জাতের মেলিফেরা ও সিরেনা- এই দুটি জাতের মৌমাছি দিয়ে এখানকার চাষিরা মধু সংগ্রহ করছেন। একশটি বাক্স থেকে বছরে ৪-৫ টন মধু সংগ্রহ করা যায়। খরচ বাদ দিয়ে ৬-৭ লাখ টাকা আয় হচ্ছে।

ঝিনাইগাতীর দুধনই গ্রামের মৌচাষি মো. আব্দুল হালিম জানান, তিনটি বাক্স দিয়ে ওই এলাকার প্রথম মৌচাষী হিসেবে তার যাত্রা শুরু হয়। সাতবছরে এসে এখন তার বাক্সের সংখ্যা দাড়িয়েছে দুইশ।

তিনি জানান, বছরে একশ বাক্সের জন্য খরচ প্রায় দুই লাখ ৫০ হাজার টাকা। খরচ বাদ দিয়ে তিনি বছরে ১০ থেকে ১১ লাখ টাকা আয় করেন।

তিনি আরও জানান, বাংলাদেশে চার প্রজাতির মৌমাছি রয়েছে। এপিস মেলিফেরা, এপিস সিরেনা, এপিস ডটসাটা, এপিস ফ্লোরিয়া। এর মধ্যে এপিস মেলিফেরা ও এপিস সিরেনা জাতের মৌমাছি বাক্সে পালন করে তারা মধু আহরণ করছেন।

আব্দুল হালিম বলেন, “নভেম্বরের ১৫ থেকে ২০ তারিখ থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত সরিষার মধু, জানুয়ারি থেকে ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত কালোজিরা ও ধনিয়ার মধু, মার্চের শুরু থেকে লিচুর মধু এবং এপ্রিল মাস থেকে গারো পাহাড়ে বনের মধু আহরণ করা হয়।”

তিনি আরো জানান, ঝিনাইগাতী উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে প্রায় তিনশ মৌচাষি ২-৩টি করে বাক্সে এপিস সিরেনা মৌমাছি চাষের মাধ্যমে মধু উৎপাদন করে বাড়তি অর্থ উপার্জন করছেন।

বাকাকুড়ার পানবর এলাকা মৌচাষি কানুরাম কোচ জানান, শুরুতে তার ১৬টি বাক্স ছিল। গত পাঁচবছরে একশত বাক্স হয়েছে। গারো পাহাড়ের মধু পাইকারি ১৬ হাজার টাকা মন দরে বিক্রি হয় বলে তিনি উল্লেখ করেন।

শেরপুরের কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মো. আশরাফ উদ্দিন বলেন, “বিসিক ও বিভিন্ন উন্নয়ন সংস্থা মৌ চাষের প্রশিক্ষণ দিচ্ছে। ভ্রাম্যমাণ মৌচাষিরা সরিষার ফুল ছাড়াও কালোজিরা, লিচু ও বনের ফুল থেকে মধু আহরণে মনোযোগী হচ্ছেন। এতে করে এ এলাকায় মৌচাষ ও মধু আহরণ বৃদ্ধি পাচ্ছে।

সৌদিতে বাস দুর্ঘটনায় বাংলাদেশি হাজি নিহত সিরিজ বোমা হামলার বিচার অবশ্যই হবে: পরিকল্পনামন্ত্রী একটি অসাধু চক্র চামড়ার দরপতনের খেলায় নেমেছে: তথ্যমন্ত্রী বিএনপির হাত ধরেই 'জঙ্গিবাদের' উত্থান: হানিফ ১ হাজার যাত্রীর অতিরিক্ত ভাড়ার টাকা ফেরত চিকিৎসা ও শিক্ষার উন্নয়নে সবকিছু করবে সরকার: প্রধানমন্ত্রী গাজীপুরের সাবেক মেয়র করিম বিএনপিতে ইসরাইলের শর্ত মেনে পশ্চিম তীর সফরে যাবেন না রাশিদা ক্রিকেট না খেলেই টাইগারদের কোচ রাসেল ডমিঙ্গো! ভেসে যাওয়া ২ ভাইয়ের একজনের লাশ উদ্ধার নাঙ্গলকোটে ট্রেনের ধাক্কায় ১ ব্যক্তি নিহত ডেঙ্গুতে ঢাকা মেডিকেলে আরও একজনের মৃত্যু অবসরের জন্য দুই মাস সময় চেয়েছেন মাশরাফি-পাপন ছাত্রদলের মনোনয়নপত্র বিতরণ শুরু ঢাকায় পৌঁছেছে হজের প্রথম ফিরতি ফ্লাইট টাইগারদের প্রধান কোচ রাসেল ডমিঙ্গো ব্রাজিলের দল ঘোষণা, থাকছেন নেইমার ইসি বাতিল করে নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন চাইলেন ফখরুল বকেয়া না পেলে ট্যানারিতে চামড়া দেবেন না আড়তদাররা আ.লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য হলেন আতাউর রহমান চিকিৎসার হাল: ম্যাজিস্ট্রেটই চরম হয়রানির শিকার শামসুর রাহমানের ১৩তম মৃত্যুবার্ষিকী প্রথম বিদেশ সফরে বাংলাদেশ আসছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বার্সার হারে নেইমারকে ফেরানোর দাবি জোরালো হচ্ছে যমুনায় বেড়ানোর কথা বলে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ প্রেম করে বিয়ে, পরে তরুণীকে গলা কেটে হত্যা কাশ্মীর সঙ্কট নিয়ে রাষ্ট্রদূতদের বাকযুদ্ধ পুলিশি অভিযানের মধ্যেই গণপিটুনিতে নিহত ২ ফেসবুকে মেয়ে সেজে র‌্যাবের হাতে ধরা ছাত্রলীগ নেতা মেসিকে ছাড়া আরও একবার টের পেল বার্সা