artk
মঙ্গলবার, মার্চ ১৯, ২০১৯ ১০:৫৮   |  ৫,চৈত্র ১৪২৫

স্টাফ রিপোর্টার

সোমবার, মার্চ ১১, ২০১৯ ৫:৪৩

ছাত্রলীগকে বিজয়ী করতেই সব আয়োজন: রিজভী

media

রুহুল কবির রিজভী

ঢাকা বিশ্বদ্যিালয়ের এ পর্যন্ত যাবতীয় আয়োজন ছাত্রলীগকে অবৈধপন্থায় বিজয়ী করার অনুকূলে। ২৯ ডিসেম্বর মধ্যরাতের ভোটের সংস্কৃতি থেকে বিশ্ববিদ্যালয়টিও বের হতে পারেনি। আজ ডাকসু নির্বাচনকেও কলঙ্কিত করা হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ।

তিনি বলেন, গত রাতেও ব্যালট বাক্স ভরানো হয়েছে, যার প্রমাণ পাওয়া গেছে আজ কুয়েত মৈত্রী হলে বস্তাভর্তি সিল মারা ব্যালটে। সাধারণ ছাত্র-ছাত্রীসহ বিরোধী ছাত্র সংগঠনের সমর্থকরা যাতে ভোট দিতে না পারে সেজন্য পুলিশ অবিশ্বাস্য রকমের তৎপরতা শুরু করেছে। সব হলেই ছাত্রলীগের আতঙ্কজনক মহড়া চলছে। 

সোমবার সকাল ১১টায় বিএনপির নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে তিনি এ কথা বলেন।

 রিজভী বলেন, ঢাকা বিশ্বদ্যিালয়ের কেন্দ্রীয় ছাত্রসংসদ (ডাকসু) একটি ঐতিহাসিক প্রতিষ্ঠান। আমাদের ভাষা, স্বাধীকার, স্বাধীনতা, গণতন্ত্রসহ সকল অধিকার আন্দোলনে ডাকসুর ভূমিকা ছিল অগ্রগামী। আজ ডাকসুর নির্বাচন। দেশে বিদ্যমান নাৎসিবাদী পরিকাঠামোর মধ্যেই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ২৮ বছর পর এ নির্বাচনটি অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

৩০ ডিসেম্বরের মধ্যরাতের ভোটের স্মৃতি ডাকসু নির্বাচনেও সাধারণ ছাত্রদেরকে তাড়িত করছে। এ নির্বাচনে সাধারণ ছাত্রদের ন্যায্য অনেক অধিকার থেকে বঞ্চিত করা হয়েছে। ঢাবির ৪৩ হাজার শিক্ষার্থীর জন্য ভোট কেন্দ্র করা হয়েছে ১৮টি হলে। সংবাদ সংগ্রহে আরোপ করা হয়েছে কড়াকড়ি বিধি নিষেধ, তথ্য নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা। মোবাইল ফোনসহ সব ধরনের ইলেকট্রনিকস ডিভাইস বিশ্ববিদ্যালয়ে নিষিদ্ধ করা হয়েছে। আজ নির্বাচনের দিন সব ধরনের অনিয়মের প্রমাণ না রাখার জন্য এসব আয়োজন।

ইতোমধ্যে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন কমপক্ষে ৩৫ জন, যা ডাকসুর ইতিহাসে নজিরবিহীন। ছাত্রলীগের ভয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়েছেন এ রকম বেশ কিছু প্রার্থী প্রার্থিতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন। বিরোধী মতের শিক্ষকদের ডাকসু নির্বাচনের কোনো দায়িত্বে রাখা হয়নি। গত কয়েক দিনের সাধারণ ছাত্রদের জোর করে ছাত্রলীগের অনুষ্ঠানগুলোতে যোগ দিতে বাধ্য করা হয়েছে। গত কয়েকদিনে সাধারণ ছাত্রদের হুমকি দিয়ে হলগুলো পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে ছাত্রলীগ ক্যাডাররা।

রাজধানীতে প্রাইভেটকার চালককে গুলি করে হত্যা বছরে ২ হাজার কোটি টাকার বৈদেশিক মুদ্রা আয় করছে মেরিন গ্রাজুয়েটরা রাজধানীতে বাসচাপায় বিইউপি শিক্ষার্থী নিহত রাতে সুনিদ্রার সহজ কিছু কৌশল সুখী হওয়ার ৫ উপায় কাব্য বিলাস মঞ্চায়ন করল ‘হইয়া গেল নির্বাচন’ ওবায়দুল কাদেরের বাইপাস সার্জারির বিষয়ে সিদ্ধান্ত মঙ্গলবার ডাকসুর প্রথম সভা ২৩ মার্চ সিডনিতে ‘বহুজাতিক বৈশাখী মেলা’ ১৩ এপ্রিল বিএনপির আরো ৫ নেতা বহিষ্কৃত ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে সজনে ডাটা স্তন ক্যান্সার শনাক্তকারী বক্ষবন্ধনী আবিষ্কার চট্টগ্রামে তিন নারী ছিনতাইকারী গ্রেপ্তার জিয়া ভোটের রাজনীতিকে সম্পূর্ণভাবে ধ্বংস করেছে: হাসিনা ট্রেনের ভাড়া বৃদ্ধির বিষয়ে সিদ্ধান্ত হয়নি: রেলমন্ত্রী নেদারল্যান্ডসে হামলাকারী তুরস্কের নাগরিক রাতে সিল মারা ঠেকাতে ব্যালট পেপার যাবে সকালে: ইসি সচিব ভুয়া মামলাকারীর বিরুদ্ধে চার্জশিট নাচের লড়াইয়ে মাধুরী-আলিয়া, জিতল কে? পুঁজিবাজার মন্দার প্রতিবাদে বিক্ষোভ ক্রাইস্টচার্চে নিহতদের জন্য দোয়া, মনোবিদের কথা ভাবছে বিসিবি টালিউডের সৃজিতকে বিয়ে করছেন মিথিলা! টেস্ট জিতে আফগানদের ইতিহাস ডাকাতের কবলে রোজী সিদ্দিকী শিষ্যদের রেখে ফিরে গেলেন রোডস-শ্রীনিবাসন বলিউডে কার অভিষেক হচ্ছে? বিদেশ সফরে নিরাপত্তার বিষয় সবার আগে: বিসিবি শ্রীলঙ্কায় দ্বি-পাক্ষিক সাইডলাইন বৈঠকে দুদক চেয়ারম্যান রাঙ্গামাটিতে ভোট শেষে গুলি, প্রিসাইডিং অফিসারসহ নিহত ৬ মাছের খামার করলেই নিবন্ধন