artk
মঙ্গলবার, নভেম্বার ১৯, ২০১৯ ১২:১৭   |  ৫,অগ্রহায়ণ ১৪২৬

সঞ্জয় দে রিপন

রোববার, ফেব্রুয়ারী ১৭, ২০১৯ ১১:৫৫

মুক্তিযোদ্ধা কবি আল মাহমুদ, তুমিই শ্রেষ্ঠ

media

বাংলাভাষা এবং মুক্তিসংগ্রামের অগ্রসৈনিক ছিলেন কবি আল মাহমুদ। দেশমাতৃকার সংস্কৃতির জন্য আমৃত্যু লড়াই করেছেন; বাংলাদেশের সংস্কৃতি রক্ষার আন্দোলনে তিনি তাঁর লেখনির মাধ্যমে সারাটা জীবন সংগ্রাম করেছেন। 

বীর মুক্তিযোদ্ধা কবি আল মাহমুদের পবিত্র আত্মা দেহকাল শেষ করে স্বর্গপানে পাড়ি জমিয়েছে। কবি এক অনন্ত সৃষ্টির পথে জীবনকাল ব্যায় করেছেন। মানবিক দৃষ্টি আর সৃষ্টির যুদ্ধে সাহিত্য, সংগ্রামে সফল এক নাম কবি আল মাহমুদ। কবির শব্দ চয়ন জীবনের নিঃশব্দ অনুনাদগুলোকে যেন বার বার শানিত করে দিয়ে যায়; অনন্ত সুধা সৃষ্টির রসবোধকে অনুরণিত করে। 

বাংলার মহান কবি, মুক্তিযুদ্ধের নীতি ও আদর্শের অন্যতম সাহিত্য সৈনিক আল মাহমুদ মানবিক সত্তার বিকাশে সাম্যের প্রতিষ্ঠায় সাহিত্য রচনা করে গেছেন। কবিতায় বাংলাদেশ, কবিতায় বাংলার মানুষ, মাটির প্রেম সংস্কৃতি আর ঐতিহ্য ও জীবনতত্ত্বের বিশ্লেষণ সুক্ষ্ণভাবে প্রকাশ করেছেন তিনি; যেন হৃদয়ে অপূর্ব এক স্বপ্নের বাংলাদেশ।

সংগ্রাম আর ভালোবাসায় সিক্ত সরল প্রাণের অসাধারণ একজন; চিন্তার সুর আর সুন্দরের আলেখ্যনে কবি মন যেন দেশপ্রেম আর চিন্তাপ্রেমের এক অমর কবি হয়ে রইলেন আল মাহমুদ। প্লেটোর চিন্তার সত্যতা অনুযায়ী আল মাহমুদের কবিপ্রাণে যেন সত্যিই দৈবিক অভিব্যক্তি ছিল। হৃদয়ের স্পন্দনকে জোরালোভাবে উপস্থাপন করেছেন তার কবিতায়।

বাংলার মাটি আর মানুষের চিন্তার সুরকে তিনি আন্দোলিত করেছেন তাঁর সৃষ্টিতে। আমি রবীন্দ্রনাথ কবি কাজী নজরুল ইসলামকে জীবদ্দশায় দেখিনি; কিন্তু কবি আল মাহমুদকে খুব কাছ থেকে দেখার এবং গল্প করার সুযোগ ঘটেছিল, সেই অভিজ্ঞতার আলোকে বলতে পারি আমার কাছে তুমিই রবীন্দ্রনাথ, তুমিই শ্রেষ্ঠ। বাংলার চিন্তাপ্রাণের অমর কবি হয়ে থাকবে তুমি। তোমার সৃষ্টির সুর এবং শব্দগাঁথুনি বাংলাদেশের প্রতিটি হৃদয়ক্ষণে বাজবে ততদিন যতদিন থাকবে বাংলাদেশ। 

বাংলাভাষা এবং মুক্তিসংগ্রামের অগ্রসৈনিক ছিলেন কবি আল মাহমুদ। দেশমাতৃকার সংস্কৃতির জন্য আমৃত্যু লড়াই করেছেন; বাংলাদেশের সংস্কৃতি রক্ষার আন্দোলনে তিনি তাঁর লেখনির মাধ্যমে সারাটা জীবন সংগ্রাম করেছেন। 

সঞ্জয় দে রিপন

ঢাকা শহরে মধ্যবিত্ত জীবন তিনি লিড করেছেন অথচ বিভিন্ন সময় ক্ষমতার অংশীদারিত্ব ভোগের সুযোগ পেয়েও তা বয়কট করে দিয়ে সবসময় শব্দ সংগ্রামী হিসেবেই নিজেকে প্রতীয়মান করেছেন। সত্য নির্ভীক এবং সহজীয়া সৃষ্টিপ্রাণের অংশীদারিত্ব নিয়ে কবি আল মাহমুদ জীবনময় সৃষ্টির প্রাণসত্তাকেই বিকশিত করেছেন। 

সত্যিকারের মুক্তিযোদ্ধা যিনি প্রকৃতি আর সমাজের অন্তর্কাঠামোর সাথে জীবন এবং স্বপ্নকে জাড়িত করেছেন। ভাষার সংগ্রাম থেকে মুক্তিযুদ্ধের সংগ্রাম সর্বক্ষেত্রেই কবিপ্রাণের জীবন উৎসর্গের প্রচেষ্টা সত্যিই আমাদেরকে উজ্জীবিত করেছেন।

কবি তুমি রবে ততদিন আমাদের প্রাণময়, যতদিন রবে বাংলাদেশ। আজ যে বাংলাদেশ তোমার সৃষ্টি এবং দেশপ্রেমের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে কার্পণ্য করেছে ইতিহাসে তারা থাকবে অন্ধকারের নষ্টরাজ্যে এটাই সত্য। তুমি স্বপ্রাণ সত্যচিন্তা প্রতিষ্ঠার সাহিত্যিক; তুমি প্রাণের আওতায় জীবন ভর বাংলাদেশের মানুষের প্রাণে বেঁচে থাকবে তোমার সৃষ্টিতে। 

কবি আল মাহমুদ সমাজের ভেতর লুকিয়ে থাকা স্বপ্ন কাঠামো; মাটি ও মানুষের জীবন বাস্তবতা, লোকজ চিন্তা এবং শিল্প উপকরণের সাহিত্যের ভাষাকে বিশ্বের দরবারে নিয়ে গেছেন। কবি তুমি বাংলাদেশকে নও বাংলাদেশের সমাজতত্ত্বকে বিশ্ব সাহিত্যের রূপরেখায় উপস্থাপন করেছো; কবি তুমি সমাজের কল্পলোকের বাস্তব চিত্রসম্ভারের আলেক্ষণে সাহিত্যের মৌলিক দিকসত্তাকে তুলে ধরেছো। তুমি রচনা করেছো জীবন কাব্য; সমাজ্য কাব্য এবং দেশের কাব্য। তুমি আছো এবং তুমি থাকবে বাংলাদেশের মগজে। তোমাকে হৃদয় অনুভূতির শ্রদ্ধা জানাই; তোমাকে সালাম।

মিথিলার সঙ্গে বিয়ে নিয়ে এবার মুখ খুললেন সৃজিত সাংবাদিকের চোখ হারানোর প্রতিবাদে চোখে ব্যান্ডেজ লাগিয়ে সংবাদ পাঠ এবার কন্যাসন্তানের বাবা হলেন তামিম প্রধানমন্ত্রী দেশে ফিরছেন রাতে যুক্তরাষ্ট্রের ওয়ালমার্ট স্টোরে গুলিতে নিহত ৩ ‘বন্দুকযুদ্ধে’ জনসংহতির ৩ সদস্য নিহত তারেক রহমানই ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার কাজ শুরু করেন: ফখরুল রিভিউ পরিবর্তন: ইমনের পরিবর্তে কায়কোবাদ ২৮৭ জনকে নিয়োগ দিবে দুদক ৫ দিনে রাজস্ব আদায় ১ হাজার ৬৫৮ কোটি টাকা শোভন-রাব্বানীসহ ১০৫ জনের সম্পদের অনুসন্ধানে দুদক মুনাফা ছাড়া পেঁয়াজ বিক্রির আহবান মেয়র খোকনের লোহাগড়ায় ডেঙ্গু জ্বরে যুবকের মৃত্যু সড়ক আইন বাস্তবায়ন হবেই: ওবায়দুল কাদের বিজ্ঞাপনে ক্যাটরিনার জায়গায় বাংলাদেশের মিম! মধ্যপ্রাচ্যের ৫ দেশে গৃহকর্মী না পাঠাতে রিট র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলমকে হাই কোর্টে তলব ‘অতি দ্রুত’ পেঁয়াজের বাজার স্বাভাবিক হয়ে আসবে: বাণিজ্য সচিব শাকিব খানকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা ক্যালিফোর্নিয়ায় পারিবারিক অনুষ্ঠানে গুলিতে নিহত ৫, আহত ১০ ‘আইনের লাগাম ছিঁড়তে’ ১০ জেলায় বাস বন্ধ সড়ক আইন প্রয়োগে বাড়াবাড়ি না করার নির্দেশ মন্ত্রীর ‘গ্রামীণফোনের বিষয়ে আদালতের বাইরে কোনো মীমাংসা নয়’ আবরার হত্যা: পলাতক ৪ জনের বিরুদ্ধে পরোয়ানা রাজধানীতে বায়ু দূষণ চরম মাত্রায় ঠেকেছে বিমানে আমদানির খবরে কমছে পেঁয়াজ দাম এরশাদপুত্র এরিককে খেতে না দেয়ার অভিযোগ নওগাঁয় ট্রাকচাপায় মা-মেয়ে নিহত ২২-২৪ নভেম্বর শালুক-এর লেখক পাঠক শুভাকাঙ্ক্ষীদের নিবিড় সম্মিলন চৌমুহনীতে আগুনে অর্ধশতাধিক দোকান পুড়ে ছাই