artk
বৃহস্পতিবার, জানুয়ারি ২৪, ২০১৯ ৮:০৮   |  ১১,মাঘ ১৪২৫

স্টাফ রিপোর্টার

সংবাদ ডেস্ক

বৃহস্পতিবার, জানুয়ারি ১০, ২০১৯ ১০:১৯

বাইকের পর এবার হেঁটে অফিসে গেলেন পলক

media

এ বিষয়ে পলক বলেন, বৃহস্পতিবার ১০টার সময় আগারগাঁওয়ে আইসিটি ভবনে একটি বৈঠক ছিল। ওই এলাকায় মেট্রো রেলের কাজ চলছে, একটি রাস্তা বন্ধ ছিল, ফলে যানজট ছিল। তাই আইডিবি ভবনের সামনে গাড়ি থেকে নেমে হেঁটে কার্যালয়ে গিয়েছি।

হেলমেট ছাড়া বাইকে চড়ে অফিসে যাওয়ায় সমালোচনার মধ্যেই এবার পায়ে হেঁটে অফিসে গেলেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

যানজটের কারণে সময় বাঁচাতে বৃহস্পতিবার এভাবে পায়ে হেঁটেই অফিসে যান তিনি।

এরপর তিনি নিজের ভেরিফাইড ফেসবুক পেজে তার পায়ে হাঁটার ভিডিও ও ছবি শেয়ার করেন।

ফেসবুকের মন্তব্য অপশনে দেখা যায়, এই ছবি ও ভিডিও নিয়েও ইতিবাচক, নেতিবাচক দুই ধরনের প্রতিক্রিয়া রয়েছে।

এ বিষয়ে পলক বলেন, বৃহস্পতিবার ১০টার সময় আগারগাঁওয়ে আইসিটি ভবনে একটি বৈঠক ছিল। ওই এলাকায় মেট্রো রেলের কাজ চলছে, একটি রাস্তা বন্ধ ছিল, ফলে যানজট ছিল। তাই আইডিবি ভবনের সামনে গাড়ি থেকে নেমে হেঁটে কার্যালয়ে গিয়েছি।

তিনি বলেন, সামান্য রাস্তা, ওইটুকু হেঁটে যেতে ৫ থেকে ১০ মিনিট লাগে। গাড়িতে বসে থাকলে দেরি হয়ে যেত। এতে বৈঠকের জন্য অপেক্ষারত অন্যরা হয়ত বিরক্ত হতেন। এ কারণে হেঁটেই চলে যায়।

এটাকে তিনি ‘সিম্পল’ ব্যাপার হিসেবে আখ্যায়িত করেন।

এর আগে, মন্ত্রিপরিষদের সদস্য হিসেবে শপথ নেয়ার পর প্রথমদিনে বাইকে চড়ে অফিসে যান তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

বাইকে চড়া দুটি ছবিতে মাথায় হেলমেট না থাকায় সমালোচনার মুখে পড়েন পলক।

এ বিষয়ে পলক জানিয়েছিলেন, ‘সময় বাঁচানোর জন্য আমি বাইকের সাহায্য নিয়েছি, তার কাছে কোনো বাড়তি হেলমেট ছিল না।’

এ বিষয়ে বৃহস্পতিবার এক প্রশ্নের জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেন, হেলমেট ছাড়া মোটরবাইকে ‘আর উঠবেন না’ তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। এ বিষয়ে তিনি ‘ভুল স্বীকার করে দুঃখপ্রকাশ করেছেন’।