artk
মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বার ২৪, ২০১৯ ২:৫০   |  ৮,আশ্বিন ১৪২৬
শুক্রবার, মার্চ ৬, ২০১৫ ৯:১০
উদীচী ট্র্যাজেডির ১৬ বছর

ঘাতকরা এখনও ধরাছোঁয়ার বাইরে

media

যশোর: উদীচী ট্র্যাজেডির ১৬ বছর পূর্ণ হচ্ছে আজ শুক্রবার। ১৯৯৯ সালের এই দিনে যশোরের টাউন হল মাঠে উদীচীর দ্বাদশ জাতীয় সম্মেলনে চালানো হয় ভয়াবহ বোমা হামলা। ওই হামলায় প্রাণ হারান ১০ জন। আহত হন শতাধিক। ১৬ বছরেও চাঞ্চল্যকর এই হত্যাযজ্ঞর সঙ্গে জড়িতদের শনাক্ত করে বিচারের মুখোমুখি দাঁড় করানো সম্ভব হয়নি। এখনও ধরাছোঁয়ার বাইরেই থেকে গেছে ঘাতকরা।

১৯৯৯ সালে উদীচী হত্যাকাণ্ড সংঘটিত হওয়ার পর পৃথক দু’টি মামলা হয়। প্রথমে কোতোয়ালি পুলিশ মামলার তদন্ত শুরু করলেও পরবর্তী সময়ে সিআইডিতে ন্যস্ত হয়। তদন্ত শেষে ওই বছরের ১৪ ডিসেম্বর বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা ও সাবেক মন্ত্রী তরিকুল ইসলামসহ ২৪ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করে সিআইডি। পরবর্তী সময়ে চার্জ গঠনের সময় উচ্চ আদালতে আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে তরিকুল ইসলামকে এ মামলা থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়।

চাঞ্চল্যকর এ মামলা আদালতে গড়ানোর ৭ বছর পর ২০০৬ সালের ৩০ মে মামলার রায় দেন আদালত। রায়ে সব আসামিকে বেকসুর খালাস দেয়া হয়। এরপর এ হামলার সঙ্গে জঙ্গি নেতা মুফতি হান্নানের জড়িত থাকার বিষয় প্রমাণ পেয়ে পুনঃতদন্তের উদ্যোগ নেয় সরকার। এরপর উদীচী ও সরকার রায়ের বিরুদ্ধে দু’টি আপিল করে।

এই মামলা দুটির দীর্ঘসূত্রিতায় ক্ষতিগ্রস্তরাসহ এলাকাবাসী ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। এর মধ্যে নাহিদ একজন। তিনি ওইদিন উদীচীর অনুষ্ঠানে উপিস্থিত ছিলেন। ওই বোমা হামলায় স্প্লিন্টারের আঘাতে তিনি দু’টি পা হারান। স্বাভাবিক মানুষের মতো আর কাজ করতে পারেন না তিনি। কিছুদিন একটি চায়ের দোকান চালালেও এখন সেটি ভাড়া দিয়েছেন।

নাহিদ বলেন, দেখতে দেখতে ১৬টি বছর পার হয়ে গেল। কিন্তু ওই দিন কারা এ নির্মম হত্যাযজ্ঞ চালিয়েছিল তা আজও জানা সম্ভব হয়নি। এজন্য প্রতিটি মুহূর্তে কষ্ট অনুভব করি। যা আল্লাহ ছাড়া আর কেউ জানে না, কেউ বোঝে না।` এ হত্যাযজ্ঞের সুষ্ঠু বিচার দেখতে পেলে খুশি হতেন বলেও জানান তিনি।

ওই ঘটনায় নিহত-আহতদের নানাভাবে পুণর্বাসন করে সরকার। কিন্তু পঙ্গুত্ব বরণ করার পর প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া এক লাখ টাকা ছাড়া কিছুই মেলেনি নাহিদের ভাগ্যে। প্রতি ২ বছর পর পর প্লাস্টিকের পা ভেঙ্গে যায়, যা নতুন করে তৈরি করতে ২০ হাজার টাকার প্রয়োজন হয়।

পঙ্গু হয়ে যাওয়া সাংস্কৃতিক-কর্মী সুকান্ত দাস বলেন, ১৬ বছর কেন ৩৬ বছর পরে হলেও যেন এ ঘটনার বিচার হয়।

উদীচী যশোরের সভাপতি ডিএম শাহিদুজ্জামান বলেন, গত ১৬ বছর ধরে বিচার চেয়ে আসছি। কিন্তু আজও বিচার পাইনি। নৃশংস এ হত্যাযজ্ঞের বিচার হলে দেশে দৃষ্টান্ত স্থাপন হতো। তাহলে আর রমনা, ছায়ানট, সাতক্ষীরার মেলাসহ বড়-বড় বোমা হামলার ঘটনা ঘটত না।

সরকারি কৌঁসুলি রফিকুল ইসলাম জানান, বর্তমান সরকার ন্যায় বিচারের স্বার্থে উদীচী মামলাটি পুনরুজ্জীবিত করতে উচ্চ আদালতে দু’টি আপিল করে, যা গৃহীত হয়। এরপর আদালতের নির্দেশে খালাসপ্রাপ্ত আসামিরা যশোর চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে আত্মসমপর্ণ করেন। উচ্চ আদালতে মামলা দুটি শুনানি পর্যায়ে রয়েছে। শিগগিরই উদীচী মামলার পুনর্বিচারের রায় হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

এদিকে, দিবসটি উপলক্ষে নানা কর্মসূচি নিয়েছে যশোর উদীচী। শুক্রবার সকাল সাড়ে ৯টায় সংগঠন প্রাঙ্গণে রক্তদান কর্মসূচি, সাড়ে ১০টায় শহীদ স্মৃতিস্তম্ভে পুষ্পমাল্য অর্পণ, বিকেল ৪টায় টাউন হলে আলোচনাসভা, প্রতিবাদী গান ও সন্ধ্যা ৭টায় শহীদ স্মারকে আলোক প্রজ্জ্বলন কর্মসূচি পালন করা হবে।

 

নিউজবাংলাদেশ.কম/এফই

‘পরিচালক আমার শরীরের প্রতি ইঞ্চি দেখতে চেয়েছিলেন’ বেআইনি কর্মকাণ্ডের অভিযোগে কিশোরগঞ্জে বাণিজ্যমেলা বন্ধ ছাত্রদলের ওপর হামলা দেশের রাজনীতিতে অশনিসংকেত: ফখরুল ক্যাসিনো ব্যবসায়ীদের আয়কর ফাইল খতিয়ে দেখছে এনবিআর কখনো দাবি করিনি, আওয়ামী লীগ ধোয়া তুলসীপাতা: কাদের বাংলাদেশে প্রতিনিধি নিয়োগ দেবে ফেইসবুক ‘রোহিঙ্গাদের এনআইডি তৈরিতে ইসির ১৫ কর্মকর্তা-কর্মচারী জড়িত’ মগবাজারে ‘পিয়াসী বার’ ঘিরে রেখেছে পুলিশ মুশফিকের চেয়ে লিটন ফিল্ডিংয়ে ভালো! স্পা সেন্টারে অভিযান: রিমান্ডে ২ পুরুষ, কারাগারে ১৬ নারী ফাইনালে সেরা পারফরম্যান্স দেখতে চান প্রধান কোচ ডমিঙ্গো জয় নিয়েই দেশে ফিরতে চায় আফগানরা বাঘারপাড়ায় দুস্থদের চাল নিয়ে নয়ছয় ছাত্রদলের নতুন কমিটির কার্যক্রমে আদালতের স্থগিতাদেশ চীন সফরে তালেবান প্রতিনিধি দল ক্যাসিনোয় জড়িত কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে মন্ত্রণালয় ব্যবস্থা নেয়নি জমি দখলের অভিযোগে মোসাদ্দেক আলী ফালুর বিরুদ্ধে মামলা হবিগঞ্জে সাংবাদিক হত্যা মামলায় ৩ জনের যাবজ্জীবন ক্যাসিনো-জুয়া: ফু-ওয়াং ক্লাবে পুলিশের অভিযান হোয়াটসঅ্যাপ স্ট্যাটাস শেয়ার দেয়া যাবে ফেসবুকে আশুগঞ্জ পাওয়ার বন্ডের আইপিও আবেদন শুরু কেনিয়ায় স্কুল ধসে পড়ে ৭ শিশুর মৃত্যু মালয়েশিয়ার হাসপাতালে জয়নাল হাজারী চাঙ্গা পুঁজিবাজার রোহিঙ্গাদের এনআইডি: নির্বাচন কর্মকর্তাসহ ৭ জনের বিরুদ্ধে দুদক মাছ উৎপাদনে বিশ্বে অষ্টম স্থানে বাংলাদেশ খুলনায় ৫ পুলিশের বিরুদ্ধে ধর্ষণের মামলা আফগানিস্তানে বিয়ের অনুষ্ঠানে সেনা হামলা: নিহত ৩৫ ‘গডফাদার-গ্র্যান্ডফাদার যারাই অপরাধ করবে শাস্তি পেতে হবে’ মাদক-দুর্নীতির চক্র না ভাঙ্গা পর্যন্ত অভিযান চলবে: কাদের