artk
রোববার, সেপ্টেম্বার ২২, ২০১৯ ২:৩৬   |  ৭,আশ্বিন ১৪২৬
বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ৩০, ২০১৫ ৭:০০

পুলিশের বর্ণবাদী আচরণে যুক্তরাষ্ট্রে বিক্ষোভ

media

পুলিশি হেফাজতে আহত কৃষ্ণাঙ্গ যুবকের মৃত্যুর ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়েছে। বাল্টিমোরসহ দেশটির বিভিন্ন শহরে বুধবার হাজার হাজার বিক্ষুব্ধ জনতা পুলিশের বর্ণবাদী আচরণের বিরুদ্ধে রাস্তায় নেমে আসে।

যুক্তরাষ্ট্রের মেরিল্যান্ড অঙ্গরাজ্যের বাল্টিমোর শহরে পুলিশি হেফাজতে আহত আফ্রিকান-আমেরিকান কৃষ্ণাঙ্গ যুবক ফ্রেডি গ্রের (২৫) মৃত্যুর ঘটনায় গতকাল ওয়াশিংটন, নিউইয়র্ক, বোস্টন, হাউসটন, মিজৌরি, সিয়াটল, ডেনভার প্রভৃতি শহরে শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ প্রদর্শণ করেন হাজারো জনতা। বিবিসি।

এদিকে, নিউ ইয়র্ক পোস্টের বরাত দিয়ে ব্রিটিশ গণমাধ্যম ডেইলি মেইল জানিয়েছে, বিক্ষোভকারীদের নিয়ন্ত্রণ করতে গিয়ে নিউ ইয়র্কে ১২০ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। পত্রিকাটি জানায়, শহরজুড়ে ছড়িয়ে পড়া প্রতিবাদ কর্মসূচি চলাকালে আন্দলোনকারীদের একটি দল নাটকীয়ভাবে অবৈধ উপায়ে বিক্ষোভ প্রদর্শণ শুরু করলে পুলিশ সেখান থেকে উল্লেখিত সংখ্যক কর্মীকে গ্রেফতার করে। অবশ্য, নিউইয়র্ক পুলিশের বরাত দিয়ে বিবিসি শহরটিতে ৬০ জনের বেশি বিক্ষোভকারীকে গ্রেফতারের খবর নিশ্চিত করেছে। ডেনভারেও বেশ কয়েকজন বিক্ষোভকারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

অন্যদিকে, নতুন কোনো সহিংসতার খবর পাওয়া না গেলেও বাল্টিমোরে দ্বিতীয় রাতের মতো কারফিউ চলেছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত, শহরের পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। গত সোমবার গ্রের শেষকৃত্য অনুষ্ঠানের কয়েক ঘণ্টা পর থেকে বাল্টিমোরে ব্যাপক সহিংস-বিক্ষোভ শুরু হয়। বিক্ষোভ মোকাবিলায় গত মঙ্গলবার শহরটিতে জরুরি অবস্থা এবং এক সপ্তাহের জন্য সান্ধ্য আইন (কারফিউ) জারি করা হয়। বাল্টিমোরের পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে পুলিশ ও ন্যাশনাল গার্ডের প্রায় তিন হাজার সদস্য মোতায়েন করা হয়।

বিক্ষোভে স্কুল, কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের অনেক শিক্ষার্থীও অংশ নেয়।

জনাথন ব্রাউন নামে বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী বলেন, ‘বিশেষত কৃষ্ণাঙ্গদের ওপর পুলিশের অবিচারের বিরুদ্ধে আমরা প্রতিবাদ করছি। এই অবিচার বন্ধ হওয়া উচিত।’

পুলিশের হাতে গ্রেফতার হওয়ার পর আফ্রিকান বংশোদ্ভূত ফ্রেডি গ্রে গত ১৯ এপ্রিল মারা যান। মৃত্যুর আগে মেরুদণ্ডে গুরুতর আঘাত পেয়ে গ্রে এক সপ্তাহ গভীর অচেতন অবস্থায় (কোমা) চিকিৎসাধীন ছিলেন। তিনি ঠিক কোথায়, কখন ও কিভাবে মেরুদণ্ডে আঘাত পেয়েছিলেন, তা তদন্ত করছে বিচার বিভাগ। গ্রেকে নির্যাতনের ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশের ছয় সদস্যকে বরখাস্ত করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, বাল্টিমোরের আগে ক্লিভল্যান্ড, মিজৌরির ফার্গুসন, নিউ ইয়র্ক ও যুক্তরাষ্ট্রের অন্য কয়েকটি এলাকায় শ্বেতকায় পুলিশের গুলি বা নির্যাতনে আফ্রিকান-আমেরিকানদের (কৃষ্ণকায়) মৃত্যু নিয়ে দেশটিতে উত্তেজনা বিরাজ করছিল।

নিউজবাংলাদেশ.কম/এসজে

নারায়ণগঞ্জে ডিবির গুলিতে পোশাক শ্রমিক আহত ১৫ বছর বয়সে ধর্ষিত হয়ে বাড়ি ছেড়েছেন নায়িকা বাংলাদেশের বিপক্ষে খেলবেন না ধোনি সদলবলে মধুর ক্যান্টিনে ছাত্রদলের সভাপতি-সম্পাদক কোহলিদের ভাতা দ্বিগুণ করলো ভারত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় মিন্নি থানায় তরুণীকে গণধর্ষণ: সাবেক ওসিসহ ৫ পুলিশের বিরুদ্ধে মামলা লোহাগড়ায় তিন শিক্ষককে হাতুড়িপেটা বাংলাদেশের মানবাধিকার নিয়ে কড়া সমালোচনা জাতিসংঘে কুষ্টিয়ায় রিকশাচালকের গলাকাটা লাশ উদ্ধার আবৃত্তিকার কামরুল হাসান মঞ্জু আর নেই ক্ষমতায় টিকতে ১৩৪ জনকে হত্যা যুবরাজের ‘বেঁচে থাকতে পশ্চিমবঙ্গে এনআরসি হতে দেব না’ তেল শোধনাগারে হামলার প্রতিশোধ নেবে সৌদি আরব ‘মিসেস বাংলাদেশ’ হলেন মুনজারিন অবনী টেকনাফে আটকের পর ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা দম্পতি নিহত বাগেরহাটে ধর্ষণ মামলায় আ.লীগ নেতা গ্রেপ্তার পানির নিচে বিয়ের প্রস্তাব দিতে গিয়ে যুবকের মৃত্যু লাইবেরিয়ায় অগ্নিকাণ্ডে কুরআন তেলাওয়াতরত ২৭ শিক্ষার্থীর মৃত্যু ভারত থেকে অস্কারে যাচ্ছে ‘গাল্লি বয়’ সাকিব তাণ্ডবে আফগানদের বিরুদ্ধে জয় পেল টাইগাররা শিবপুরে মদপানে দুই শ্রমিকের মৃত্যু পাটগ্রামে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে কলেজছাত্রীর অবস্থান চট্টগ্রামের মুক্তিযোদ্ধা ক্রীড়া সংসদেও জুয়ার আসর ১৩০টি দেশ ভ্রমণ করেছেন এই অন্ধ পর্যটক ৪০ কোটি টাকা নিয়ে পালানো সেই টার্কি বাবলু স্ত্রীসহ গ্রেপ্তার দুর্নীতির দায়ে সরকারের পদত্যাগ করা উচিত: ফখরুল চলমান অভিযান জনমনে প্রত্যাশার সৃষ্টি করবে: টিআইবি স্কুল মাস্টারের ছেলে জি কে শামীমের ডন হয়ে ওঠা রাজধানীর ভূতের আড্ডায় অভিযান!