artk
বুধবার, এপ্রিল ১৫, ২০১৫ ২:১৬

চিংড়ি পোনা আহরণে বিপন্ন অন্য প্রজাতিও

media

খুলনা: উপকূলীয় জেলাগুলোতে চলছে চিংড়ি পোনা আহরণের মহোৎসব। এ এলাকায় গড়ে ওঠা চিংড়ি ঘেরের প্রয়োজনে সরকারি নিষেধাজ্ঞাও নিবৃত করতে পারেনি পোনা শিকারিদের। নদী থেকে বাগদা-গলদা চিংড়ি পোনা আহরণ করার ফলে বিপন্ন হয়ে পড়ছে অন্য প্রজাতির মাছ ও সামুদ্রিক সম্পদ।

সুন্দরবন সংলগ্ন নদ-নদী ও সাগর পারের সোনার চর থেকে শুরু করে মৌডুবী পর্যন্ত বিস্তীর্ণ এলাকার অভ্যন্তর ভাগের প্রায় ৩০ কিলোমিটার পর্যন্ত বিশাল এলাকায় চলছে পোনা শিকারিদের তাণ্ডব। সুন্দরবন সংলগ্ন কয়রা, পাইকগাছা, দাকোপ, বটিয়াঘাটা, সাতক্ষীরার আশাশুনি, দেবহাটা, শরনখোলাসহ বিভিন্ন উপজেলার নদ-নদী থেকে অবাধে পোনা সংগ্রহ করা হচ্ছে। পোনা শিকারিদের কাছ থেকে পোনা সংগ্রহ করে ক্রেতারা পোনা নিয়ে যাচ্ছে আড়তে। আড়তদারের মাধ্যেমে এগুলো স্থানীয় ঘের ছাড়াও চালান হয়ে যাচ্ছে চালনা, রামপাল, বাগেরহাট, পাইকগাছা, সাতক্ষীরা, ফয়লাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে। অবাধে নদী থেকে গলদা রেনু ও বাগদা পোনা শিকার করায় সামুদ্রিক সম্পদ ও জীববৈচিত্র্য মারাত্মক হুমকির মুখে পড়েছে। গলদা রেনু ও বাগদা পোনা ধরতে গিয়ে অন্য প্রজাতির কোটি কোটি রেণু পোনা, ডিম ও খাদ্য কণা ধ্বংস হয়।

মৎস্য অধিদপ্তরের সূত্রমতে, ১টি বাগদা বা গলদা রেনু সংগ্রহ করতে গিয়ে ২১২টি বিভিন্ন প্রজাতির পোনা এবং ১ হাজার ১টি মাছের খাদ্যকণা জুপ্লাঙ্কটন ও ফাইটো প্লাঙ্কটন ধ্বংস হয়ে যায়। মৎস্য সম্পদের এ ক্ষতির দিকটি পোনা শিকারি, ঘের মালিক ও ব্যবসায়ীরা বিবেচনায় আনছে না। স্থানীয় মৎস্যজীবী এবং প্রবীণ জেলেরা জানান, সচেতনতার অভাব, গলদা-বাগদা পোনা শিকারে ঘন ফাঁসের নেট জালের ব্যবহার, অপরিকল্পিত চিংড়ি চাষ, বেহন্তি জালে ছোটসহ সব ধরনের মাছ নিধন এবং ডিমওয়ালা মাছ মেরে ফেলার কারণে আশঙ্কাজনক হারে মাছের উৎপাদন কমে যাচ্ছে।

খুলনা জেলা মৎস্য অফিসার প্রফুল্ল কুমার সরকার নিউজবাংলাদেশকে বলেন, নদী থেকে কারেন্ট জাল ব্যবহার করে পোনা শিকার করা নিষিদ্ধ। তারপরও পোনা শিকার চলছে। মৎস্য বিভাগ থেকে মাঝে মাঝে এর বিরুদ্ধে অভিযান চালানো হয়। এর সঙ্গে যুক্তদের জেল-জরিমানাও করা হয়।

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নারায়ন চন্দ্র চন্দ বলেন, এক সময়ে আমাদের নদ-নদীতে সামদ্রিক অনেক প্রজাতির মাছ পাওয়া যেত। মাছগুলো ছিল অনেক সুস্বাদু ও উপকারী। কিন্তু সেসব মাছের অনেক প্রজাতি আজ বিলুপ্ত হয়েছে শুধুমাত্র সচেতনার কারণে। তিনি বলেন, নদী থেকে বাগদা, গলদাসহ অন্যান্য প্রজাতির পোনা আহরণ বন্ধ করতে সরকার আইন করেছে। আইন ভঙ্গ করে পোনা আহরণ যারা করছে তাদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। তবে এ ক্ষেত্রে আমাদেরকেই বেশি সচেতন হতে হবে।

মৎস্য সম্পদের মারাত্মক ক্ষতির দিক বিবেচনা করে ২০০০ সালের ২১ সেপ্টেম্বর মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয় এক প্রজ্ঞাপন জারির মাধ্যমে দেশের উপকূলীয় এলাকায় বাগদা-গলদাসহ সব ধরনের চিংড়ি পোনা এবং প্রাকৃতিক উৎস থেকে অন্যান্য মাছের পোনা আহরণ নিষিদ্ধ ঘোষণা করে।

নিউজবাংলাদেশ.কম/এসএইচ/এফই

পশুর চেয়েও নিকৃষ্ট ধর্ষক: প্রধানমন্ত্রী করোনা ভাইরাসের কারণে হজে যাওয়া না হলে টাকা ফেরত: ধর্ম প্রতিমন্ত্রী দাঙ্গা নয়, দিল্লিতে পরিকল্পিত গণহত্যা হয়েছে: মমতা ভারতের সম্মান তলিয়ে দিয়েছে মোদি সরকার: মমতা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় হচ্ছে সুনামগঞ্জে এনামুল-রুপন ছয় দিনের রিমান্ডে পিরোজপুরে সাবেক ইউপি সদস্যকে কুপিয়ে হত্যা চলতি বছরই তিস্তা চুক্তির সম্ভাবনা: শ্রিংলা ঢাকা উত্তরের নির্বাচন বাতিল চেয়ে তাবিথের মামলা খুলনায় ছাত্রলীগ নেতাকে পিটিয়ে হত্যা অভিনেতা গোলাম মুস্তাফার জন্মদিন সোমবার আদালতে টাউট-বাটপার শনাক্তের নির্দেশ পাওয়ার ট্রলিকে ধাক্কা দিয়ে বিকল রেলইঞ্জিন কলকাতা সফরে এসে প্রবল বিক্ষোভের মুখে অমিত শাহ রোবট চালাবে গাড়ি! ভিপি নূরকে হত্যার হুমকি দেয়ার পর দুঃখ প্রকাশ টেকনাফে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ৭ জন নিহত রাখাইনপ্রদেশে সেনাদের গুলিতে শিশুসহ ৫ রোহিঙ্গা নিহত ইস্কাটনে ভবনে আগুন: মায়ের পর চলে গেলেন রুশদির বাবাও চট্টগ্রামে একটি বস্তিতে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ২ দেশে প্রতিদিন যক্ষ্মায় মারা যায় ১৩০ জন: স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনাভাইরাস আতঙ্কে আয়ারল্যান্ডের স্কুল বন্ধ ঘোষণা বিশিষ্ট সুরকার সেলিম আশরাফ আর নেই মোদীকে অতিথি হিসেবে সর্বোচ্চ সম্মান দেওয়া হবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী মধুর যত জাদুকরী গুণ চিপসের প্যাকেটের ভিতর খেলনা নয়: হাইকোর্ট আমার গাড়িতেও অস্ত্র আছে কী না আমি জানি না: শামীম ওসমান ফ্র্যান্সেও করোনা, অনিশ্চিত কান চলচ্চিত্র উৎসব উপনির্বাচন: গাইবান্ধা-৩ আসনে প্রতীক বরাদ্দ গুজব ও গণপিটুনি রোধে হাইকোর্টের ৫ নির্দেশনা