artk

স্টাফ রিপোর্টার

রোববার, ডিসেম্বার ৮, ২০১৯ ৫:২০

খালেদার জামিন নিয়ে সরকার ‘জঘন্য নাটক’ করছে: ফখরুল

media

ফাইল ফটো

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার জামিন নিয়ে সরকার ‘জঘন্য নাটক’ করছে বলে অভিযোগ করেছেন দলের মহসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার জামিন নিয়ে সরকার ‘জঘন্য নাটক’ করছে বলে অভিযোগ করেছেন দলের মহসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

শনিবার দুপুরে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক যৌথসভা শেষে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘দেশে এখন আইনের শাসন নেই। তারা (সরকার) এখন দেশ প্রেমিক ও সবচেয়ে জনপ্রিয় নেত্রী খালেদা জিয়ার জামিন নিয়ে জঘন্য নাটক করছে। দয়া করে নাটক বাদ দিয়ে দেশনেত্রীকে জামিন নিয়ে বেঁচে থাকার ব্যবস্থা করুন।’

খালেদার খারাপ কিছু হলে দেশের মানুষ কখনই সরকারকে ক্ষমা করবে না বলে সতর্ক করে দিয়ে বিএনপি নেতা বলেন, ‘খালেদা জিয়ার অবস্থা নিয়ে দেশের মানুষ এখন অবগত রয়েছে।’

প্রসঙ্গত, গত বৃহস্পতিবার আপিল বিভাগ জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় খালেদার জামিন আবেদনের শুনানি পিছিয়ে ১২ ডিসেম্বর ধার্য করে। সেই সাথে তার চিকিৎসায় নিয়োজিত বিএসএমএমইউর মেডিকেল বোর্ড ২৮ নভেম্বরের আদেশ অনুযায়ী খালেদার শারীরিক অবস্থার প্রতিবেদন বৃহস্পতিবার জমা দিতে না পারায় তাদের এ প্রতিবেদন ১২ ডিসেম্বর জমা দিতে বলে আদালত।

ওই দিন আদালত চত্বরে বিএনপি সমর্থিত আইনজীবীদের হট্টগোলের পরিপ্রেক্ষিতে ক্ষমতাসীন দলের নেতাদের সমালোচনা জবাবে ফখরুল ২০০৬ সালের ৩০ নভেম্বরের কথা মনে করিয়ে দেন।

তিনি বলেন, ‘জামিন শুনানির সময় আমাদের নেত্রী খালেদার পক্ষে দাঁড়ানোয় জঘন্য অপরাধ হয়েছে বলে সরকারের মন্ত্রীরা আমাদের আইনজীবীদের সমালোচনা করছে। কিন্তু এ ধরনের মন্তব্যের আগে একটু পিছনে ফিরে তাকান। আমাদের আইনজীবীরা খারাপ কিছু করেনি। তারা নিজেদের স্থানে থেকেই ন্যায়বিচারের দাবি জানিয়েছে।’

সাংবাদিকদের কিছু ছবি দেখিয়ে বিএনপি নেতা বলেন, ‘২০০৬ সালের ৩০ নভেম্বর আওয়ামী লীগের আইনজীবীরা আদালত চত্বরে লাঠি নিয়ে মিছিল করেছে এবং প্রধান বিচারপতির চেম্বার লণ্ডভণ্ড করেছে।’

তিনি আরও বলেন, আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীরা আদালত চত্বরে পার্ক করে রাখা আইন প্রতিমন্ত্রী শাহজাহান ওমরের গাড়িতে আগুন দিয়েছিল।

তিনি বলেন, ‘যারা এ ধরনের ক্রিয়াকলাপে লিপ্ত ছিল তাদের অনেককে পরে বিচারক হিসাবে নিয়োগ দেয়া হয়েছিল, কিন্তু এখন আপনি হুমকি দিচ্ছেন এবং বলছেন যে আমাদের আইনজীবীদের আচরণটি ক্ষমাযোগ্য নয়। তাই, অতীতে সুপ্রিম কোর্টে আপনি কী করেছিলেন তা আপনাকে স্মরণ করিয়ে দেয়া দরকার।

বাবার মৃত্যুর ৭ দিনের মাথায় বাসচাপায় নিহত ছেলে পরোয়ানার সঙ্গে গণমাধ্যমের স্বাধীনতার কোনো সম্পর্ক নেই: তথ্যমন্ত্রী ফরিদপুরে ঘুমন্ত মা-মেয়ের মৃত্যু আগুনে পুড়ে সৌদি ধনকুবেরের সঙ্গে রিয়ান্নার প্রণয়ের যবনিকা শেষ হলো বিশ্ব ইজতেমা নাগরিকত্ব আইন সংশোধনের প্রয়োজন ছিল না: শেখ হাসিনা নির্বাচন কমিশন একেবারেই ব্যর্থ ও অযোগ্য: মির্জা ফখরুল প্রথম আলো সম্পাদকসহ ৫ জনের জামিন আবেদন যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুকধারীর গুলিতে একই পরিবারের নিহত ৪ ইয়েমেনে হুতি বাহিনীর হামলায় সিহত ৬০ স্ত্রী-শাশুড়িসহ ৪ জনকে হত্যার পর আত্মহত্যা বন্ধের দিনে আদালতে নারীসহ ধরা খেলেন আইনজীবী ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা নিহত, ৬ কোটি টাকার ইয়াবা জব্দ জিম্বাবুয়েকে উড়িয়ে শুরু বাংলাদেশের যুব বিশ্বকাপ মঙ্গলবার থেকে আবারও শীত নামতে পারে পুতিন কে এবং তিনি কী চান? রাজকীয় উপাধি-প্রাসাদ ব্যবহার করবেন না হ্যারি ও মেগান আখেরি মোনাজাতে অংশ নিতে তুরাগতীরে মুসল্লিদের ঢল অস্টিওপরোসিস রোধ করে বাদাম ঢাকার দুই সিটির ভোট ১ ফেব্রুয়ারি এসএসসি পরীক্ষা শুরু ৩ ফেব্রুয়ারি: শিক্ষা মন্ত্রণালয় সড়ক পরিবহন আইন নিয়ে ‘পাথওয়ে’র প্রশিক্ষণ কর্মসূচি চীন ও মিয়ানমারের ৩৩ চুক্তি স্বাক্ষরিত মারা গেছেন বিশ্বের সবচেয়ে খাটো চলনক্ষম ব্যক্তি নগরবাসীর স্বতঃস্ফূর্ত সাড়া পাচ্ছি: তাপস বলিউড অভিনেত্রী শাবানা আজমি সড়ক দুর্ঘটনায় আহত বিশ্ব ইজতেমার দুই পর্বে ১৯ মুসল্লির মৃত্যু ইব্রাহীমদের জীবন আবেদন না করলে বাংলাদেশের কেউ নাগরিকত্ব পাবে না: দিলীপ ঘোষ ভিন্নমত পোষণ করলেই স্তব্ধ করে দেয়া হচ্ছে: ফখরুল