artk

নিউজ ডেস্ক

বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বার ৫, ২০১৯ ৫:০৫

রোহিঙ্গাদের কারণে স্থানীয়দের কর্মসংস্থানের সুযোগ কমছে: টিআইবি

media

বাংলাদেশে রোহিঙ্গাদের অবস্থানের দীর্ঘমেয়াদী প্রভাব নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি) বলেছে, রোহিঙ্গারা স্বল্প পারিশ্রমিকে কাজ করছে বলে স্থানীয় কর্মীরা কর্মসংস্থানের সুযোগ কম পাচ্ছে।

বাংলাদেশে রোহিঙ্গাদের অবস্থানের দীর্ঘমেয়াদী প্রভাব নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি) বলেছে, রোহিঙ্গারা স্বল্প পারিশ্রমিকে কাজ করছে বলে স্থানীয় কর্মীরা কর্মসংস্থানের সুযোগ কম পাচ্ছে।

বৃহস্পতিবার টিআইবির গবেষণার ফলাফলে এ তথ্য তুলে ধরা হয়েছে।

এতে বলা হয়েছে, রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়ায় বিলম্ব হওয়ার কারণে স্থানীয় জনগণ বিভিন্ন ঝুঁকির মুখোমুখি হচ্ছে।

টিআইবির নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান বলেন, ‘আমাদের গবেষণার তথ্য উপাত্ত থেকে প্রমাণিত হয়েছে যে, রোহিঙ্গাদের উপস্থিতির কারণে কক্সবাজারের স্থানীয় জনগণের অর্থনৈতিক, সামাজিক ও পরিবেশজনিত ঝুঁকি বেড়েছে।’

রাজধানীর ধানমন্ডিতে মাইডাস সেন্টারে ‘বাংলাদেশে জোরপূর্বক বাস্তুচ্যুত মিয়ানমার (রোহিঙ্গা) নাগরিকদের অবস্থান: চ্যালেঞ্জ ও সুশাসনের দিকে উত্তরণ’ শীর্ষক টিআইবির গবেষণা থেকে প্রাপ্ত ফলাফলের ওপর আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য প্রকাশ করা হয়।

গবেষণায় দেখা গেছে, কক্সবাজারের মোট জনসংখ্যার ৬৩.২ শতাংশ রোহিঙ্গা এবং ৩৪.৮ শতাংশ স্থানীয় বাংলাদেশি। যা সামাজিক ঝুঁকি বৃদ্ধির পেছনের মূল কারণ।

প্রসঙ্গত, বর্তমানে বাংলাদেশের কক্সবাজার জেলায় ১১ লাখের বেশি রোহিঙ্গা আশ্রয় নিয়ে আছে। যাদের বেশিরভাগই ২০১৭ সালের আগস্টে মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে সেনাবাহিনীর নির্মম নির্যাতনের শিকার হয়ে নিজ মাতৃভূমি থেকে পালিয়ে এসেছে।

টিআইবি’র গবেষণার ফলাফলে আরও উল্লেখ করা হয়, রোহিঙ্গারা স্বল্প পারিশ্রমিকে কাজ করছে বলে স্থানীয় কর্মীরা কর্মসংস্থানের সুযোগ কম পাচ্ছে।

স্থানীয় সরকার হাসপাতালগুলোতে রোহিঙ্গাদের চিকিৎসা সেবায় মোট সম্পদের ২৫ শতাংশেরও বেশি ব্যয় করা প্রয়োজন। যাতে স্থানীয় জনগণের চিকিৎসা সেবা ব্যাহত হচ্ছে।

টিআইবি’র গবেষণাটি আরও ইঙ্গিত দেয় যে, কক্সবাজারে সামাজিক অবক্ষয়ের ক্রমবর্ধমান ঝুঁকি বাড়ার পাশাপাশি মাদক চোরাচালান, নারী পাচার, পতিতাবৃত্তি বাড়ছে। সূত্র: ইউএনবি।

বাবার মৃত্যুর ৭ দিনের মাথায় বাসচাপায় নিহত ছেলে পরোয়ানার সঙ্গে গণমাধ্যমের স্বাধীনতার কোনো সম্পর্ক নেই: তথ্যমন্ত্রী ফরিদপুরে ঘুমন্ত মা-মেয়ের মৃত্যু আগুনে পুড়ে সৌদি ধনকুবেরের সঙ্গে রিয়ান্নার প্রণয়ের যবনিকা শেষ হলো বিশ্ব ইজতেমা নাগরিকত্ব আইন সংশোধনের প্রয়োজন ছিল না: শেখ হাসিনা নির্বাচন কমিশন একেবারেই ব্যর্থ ও অযোগ্য: মির্জা ফখরুল প্রথম আলো সম্পাদকসহ ৫ জনের জামিন আবেদন যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুকধারীর গুলিতে একই পরিবারের নিহত ৪ ইয়েমেনে হুতি বাহিনীর হামলায় সিহত ৬০ স্ত্রী-শাশুড়িসহ ৪ জনকে হত্যার পর আত্মহত্যা বন্ধের দিনে আদালতে নারীসহ ধরা খেলেন আইনজীবী ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা নিহত, ৬ কোটি টাকার ইয়াবা জব্দ জিম্বাবুয়েকে উড়িয়ে শুরু বাংলাদেশের যুব বিশ্বকাপ মঙ্গলবার থেকে আবারও শীত নামতে পারে পুতিন কে এবং তিনি কী চান? রাজকীয় উপাধি-প্রাসাদ ব্যবহার করবেন না হ্যারি ও মেগান আখেরি মোনাজাতে অংশ নিতে তুরাগতীরে মুসল্লিদের ঢল অস্টিওপরোসিস রোধ করে বাদাম ঢাকার দুই সিটির ভোট ১ ফেব্রুয়ারি এসএসসি পরীক্ষা শুরু ৩ ফেব্রুয়ারি: শিক্ষা মন্ত্রণালয় সড়ক পরিবহন আইন নিয়ে ‘পাথওয়ে’র প্রশিক্ষণ কর্মসূচি চীন ও মিয়ানমারের ৩৩ চুক্তি স্বাক্ষরিত মারা গেছেন বিশ্বের সবচেয়ে খাটো চলনক্ষম ব্যক্তি নগরবাসীর স্বতঃস্ফূর্ত সাড়া পাচ্ছি: তাপস বলিউড অভিনেত্রী শাবানা আজমি সড়ক দুর্ঘটনায় আহত বিশ্ব ইজতেমার দুই পর্বে ১৯ মুসল্লির মৃত্যু ইব্রাহীমদের জীবন আবেদন না করলে বাংলাদেশের কেউ নাগরিকত্ব পাবে না: দিলীপ ঘোষ ভিন্নমত পোষণ করলেই স্তব্ধ করে দেয়া হচ্ছে: ফখরুল